kalerkantho


‘বাজে স্বভাব’-এর গায়ক!

এ সময়ের প্রশংসিত গান ‘বাজে স্বভাব’-এর গায়ক রেহান রাসুলকে নিয়ে লিখেছেন ইসমাত মুমু

১২ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



‘বাজে স্বভাব’-এর গায়ক!

অভিনেত্রী-পরিচালক ও গায়িকা মেহের আফরোজ শাওন ফেসবুকে রেহানের গান শেয়ার করে লিখেছেন, “আমার ছোট বোনের সঙ্গে ‘নতুন কুঁড়ি’তে গান করত ছেলেটা। আমাকে আপুনি বলেই ডাকত। হঠাৎ দেখি পিচকুটা বড় হয়ে গেল! রেডিও শো করে, নতুন নতুন চিন্তাভাবনায় মুগ্ধ করে শ্রোতাদের। শুধু নিজের জন্য গাইতে বললেই পিছলায়ে যায়। অবশেষে আমার এই অতি ভদ্র ছোট ভাইটা গান গেয়ে সেই গানের ভিডিও করেছে! যার জীবনের ৯৯.৯৯% ভালো, সে গেয়েছে একখান ‘বাজে স্বভাব’-এর গান!...ভাই রে, একটা সাদা কাগজে সই দিয়ে দিস, পরে আর পাই কি না!” শুধু শাওনই নন, আরো অনেক সেলিব্রিটিই প্রশংসা করছেন রেহানের। ‘আমি চিন্তাই করিনি এ ধরনের রেসপন্স পাব। অনেকেই আমাকে চিনতেন না। যেমন—লুত্ফর হাসান। উনি শুধু ভালো গায়কই নন, তাঁর লিরিকও অসাধারণ। চয়নিকা চৌধুরীও গানটা শেয়ার করেছেন। গানটা কোনো না কোনোভাবে উনাদের কাছে পৌঁছে গেছে। এটাই আমার প্রাপ্তি’—বললেন রেহান।

ছোটবেলায় গান শিখেছেন বুলবুল ললিতকলা একাডেমিতে। ১১ বছর বয়সেই উচ্চাঙ্গসংগীতে পুরস্কার পেয়েছিলেন। সাত বছর ধরে আরজেগিরি করছেন। প্রথমে সিটি এফএম, পরে এবিসি রেডিও। বছরখানেক রেডিও টুডের হেড অব প্রগ্রাম ছিলেন। এখন আবার এবিসিতেই ফিরেছেন। আরজেগিরি করতে গিয়ে শ্রোতাদের সঙ্গে তাঁর যোগাযোগ। “আমার কথা শুনে অনেকেই আকর্ষণ বোধ করেন, আমাকে ভালোবাসেন। তা ছাড়া আমি ছোটবেলা থেকে বেশ ইঁচড়ে পাকা। বেশ কয়েকটা প্রেম করেছি, ছেঁকাও খেয়েছি। এই সব অভিজ্ঞতার আলোকেই ‘বাজে স্বভাব’ গানের কথা লিখেছি”—বললেন রেহান।

এর আগে বেশ কিছু জনপ্রিয় গান কাভার করেছেন। রেহান বলেন, “রেডিওতে একটা লাইভ শো করি। ওখানেই লাইভ গেয়েছি। কোনো মিক্সিং নেই, মাস্টারিং নেই, লাইভে করা গানগুলোই ভিডিও আকারে ইউটিউব চ্যানেলে ছেড়ে দিতাম। এর আগে নিজের করা দুটি গান আছে—‘বলো বীর’ ও ‘সময়’। সত্যি বলতে, ‘বাজে স্বভাব’-এর মতো সাড়া পাইনি কোনো গানেই।”

অনেকেই রেহানের গানে নচিকেতাকে খুঁজে পান। “আমার আগের দুটি গান শুনলে কেউ বলবে না নচিকেতার মতো গাই। তবে আমি মাহমুদুন্নবী, সৈয়দ আব্দুল হাদীর মতো লিজেন্ডদের ফলো করি। এই তালিকায় নচিকেতাও আছেন। যখন আমার লিরিক ও সুর তাঁর গানের মতো হয়ে যায়, তখন অবশ্যই তাঁকে ফলো করি। ‘বাজে স্বভাব’-এর কথা এমন ছিল বলেই নচিকেতার একটা প্রভাব হয়তো পাচ্ছেন অনেকে। আমার পরের গান শুনলে শ্রোতারা হয়তো অন্য কোনো গায়কের সঙ্গে মিল খুঁজে পাবেন”—বলেন রেহান।

গানের কথা ‘আমি-তুমি’র মধ্যে সীমাবদ্ধ রাখতে চান না। নতুন আরেকটা গান করছেন—‘প্রেম রাজনীতি’। রেহান বলেন, “এটিও হয়তো অনেক মানুষকে হার্ট করবে। কারণ কথাগুলো সত্য। আরেকটা গান করছি ‘নষ্ট সম্পর্ক’ নিয়ে। ভালোবেসে ফেলার পর কেউ যদি সেখান থেকে ফিরে আসে, আর সেই নষ্ট সম্পর্কটাই যদি কেউ এনজয় করে! গানের কথায় থাকবে এসব।”

টুকটাক অভিনয়ও করেন। ‘অনাকাঙ্ক্ষিত সত্য’ ধারাবাহিকে ছিলেন, গত ঈদের একটি নাটকেও অভিনয় করেছেন। সুযোগ পেলে অভিনয়ও করতে চান। ‘কোনো ধরনের শিল্প থেকেই দূরে থাকতে চাই না। তবে আমার মূল জায়গাটা গান। গান দিয়েই শুরু, গান দিয়েই শেষ’—বলেন রেহান।

এবিসি রেডিওর প্রগ্রাম প্রডিউসার হিসেবে দিনে কমপক্ষে ১০ ঘণ্টা ডিউটি করতে হয় তাঁকে। এর পরও আছে তিনটা লাইভ শো। সেগুলোও করতে হয়। বৃহস্পতিবার রাত ১-৩টার শো আছে। কথা বলা আর গান গাওয়াই তাঁর ক্যারিয়ার। রেডিওতে যুক্ত হয়েছেন গানের কারণেই। ব্যান্ড ‘ফিউশনাস’-এর হয়ে গাইতে এসেছিলেন রেডিওতে। সিনিয়র কর্মকর্তারা রেডিও জকি [আরজে] হওয়ার প্রস্তাব দেন। লুফে নিলেন রেহান। চাকরি শুরু করার পর ব্যান্ডে সময় দিতে পারেননি। প্রথম দিকে রেডিওতে প্রতি শোতেই চারটি গান করতে হতো রেহানকে। এভাবেই গানের প্র্যাকটিসটা চলতে থাকে। রেহান বলেন “এত দিন ধরে আসলে গান প্রকাশ করার জন্য নিজেকে গোছাতে পারছিলাম না। যখন গায়ক-সুরকার পৃথ্বিরাজদা আমারই অফিসে জয়েন করলেন, তখন আর দেরি করিনি। উনি সব সময়ই নতুন কিছু করতে চান। পৃথ্বিদাকে যখন গানটা শোনালাম, উনি বললেন—এটা তো খুব সুন্দরভাবে কম্পোজ করা সম্ভব। এভাবেই হয়ে গেল ‘বাজে স্বভাব’।”



মন্তব্য