kalerkantho


বিশ্বসাহিত্য

স্যান্ডার্সের গাইড টু পলিটিক্যাল রেভল্যুশন

৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ০০:০০




স্যান্ডার্সের গাইড টু পলিটিক্যাল রেভল্যুশন

বার্নি স্যান্ডার্স

যুক্তরাষ্ট্রের গত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্রেটিক পার্টির মনোনয়নের জন্য লড়েছিলেন সিনেটর বার্নি স্যান্ডার্স। কিন্তু শেষ পর্যন্ত দলের মনোনয়ন পান হিলারি ক্লিনটন।

নির্বাচনী প্রচারের সময় স্যান্ডার্সের প্রচারদলের উদ্যোগে একটি সংস্থা গঠন করা হয়। ‘আওয়ার রেভল্যুশন’ নামের প্রগতিশীল ওই সংস্থার লক্ষ্য ভোটারদের বিভিন্ন ইস্যু সম্পর্কে জ্ঞান দেওয়া, রাজনীতির সঙ্গে সংশ্লিষ্ট করা এবং প্রগতিশীল প্রার্থীকে বেছে নিতে উদ্বুদ্ধ করা। গত নভেম্বরে স্যান্ডার্স বড়দের জন্য ‘আওয়ার রেভল্যুশন : অ্যা ফিউচার টু বিলিভ ইন’ নামে একটি বইও প্রকাশ করেন, যাতে জলবায়ু পরিবর্তন, বিনা মূল্যে কলেজে পড়াশোনা, আয়বৈষম্য, নারী ও পুরুষের মজুরি ব্যবধান কমানো, ডোনাল্ড ট্রাম্পকে হারানোর পন্থাসহ সরকার পরিচালনার ক্ষেত্রে তাঁর চিন্তাভাবনা তুলে ধরা হয়। আমেরিকার আগামীর কর্ণধার তরুণদের জন্য স্যান্ডার্স এবার প্রকাশ করেছেন ‘দ্য বার্নি স্যান্ডার্স গাইড টু পলিটিক্যাল রেভল্যুশন’। মূলত ‘আওয়ার রেভল্যুশন’কেই তরুণদের জন্য সহজবোধ্য করে লিখে ‘গাইড টু পলিটিক্যাল রেভল্যুশন’ নাম দেওয়া হয়েছে। বইয়ের মুখবন্ধে স্যান্ডার্স লেখেন, প্রাইমারি ও ককাসের ভোটের সময় তিনি তরুণদের ভোট পেয়েছেন ট্রাম্প ও হিলারির মিলিত ভোটের চেয়েও বেশি। স্যান্ডার্স তরুণ প্রজন্মকে এমন সব প্রগতিশীল ইস্যুতে লড়াই চালানোর আহ্বান জানান, যা চাকরির সুযোগ সৃষ্টি করবে, মজুরি বাড়াবে, পরিবেশ রক্ষা করবে ও সবার জন্য স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করবে।

-রিয়াজ মিলটন


মন্তব্য