logo
আপডেট : ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৫:৫০
কোহলিকে \'সুইপার\' বললেন সাংবাদিক!

কোহলিকে \'সুইপার\' বললেন সাংবাদিক!

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রজেক্ট 'স্বচ্ছ ভারত' এর প্রচারে গত বছর কলকাতার ইডেন গার্ডেনে ঝাড়ু হাতে নেমে পড়েছিলেন বিরাট কোহলি। এক বছর পর ঝাড়ু হাতে ভারত অধিনায়কের সেই ছবি সোশাল মিডিয়ায় বিতর্কের ঝড় তুলেছে। এই বিতর্কের পেছনে একজন অস্ট্রেলিয়ান সাংবাদিক। ঝাড়ু হাতে কোহলির সেই ছবি টুইটারে পোস্ট করে তিনি লিখেছেন, 'বিশ্ব একাদশের ম্যাচের আগে মাঠের যত্ন নিতে ঝাড়ুদাররা মাঠ পরিষ্কার করছে।'

ছবির সঙ্গে এই ক্যাপশন ব্যবহার করে ইঙ্গিতটা যে তিনি কোহলিকেই বুঝিয়েছেন সেটা বুঝতে ভুল করেনি ক্রিকেটবিশ্ব। ভারত অধিনায়ককে নিয়ে এমন অসম্মানজনক টুইটের পরই ইন্টারনেট দুনিয়ায় কোহলি অনুরাগীদের তোপের মুখে পড়েছেন সেই সাংবাদিক।

রবিবারই চিপকের বাইশ গজে শুরু হচ্ছে ভারত-অস্ট্রেলিয়ার ৫ ম্যাচের ওয়ানডে লড়াই। এরপরই এমন টুইট দুই ক্রিকেট খেলিয়ে দেশের মধ্য সম্পর্কে ভাঙন ধরাতে পারে বলে মনে করছে ক্রিকেটভক্তরা। শুরু তাই নয় বছরের শুরুতে 'ডিআরএস' গেট নিয়ে দুই দেশের ক্রিকেটাররা সমস্যায় জড়িয়েছিল। সেই অতীত ভুলেই আবারও নতুন করে সিরিজ শুরুর বার্তা দিয়েছেন অজি ক্যাপ্টেন স্মিথ।

তীর্যক টুইট নিয়ে ক্রিকেটাররা কোনো মন্তব্য না করলেও ইন্টারনেট দুনিয়ায় এই মন্তব্য ভক্তদের 'ইগো'তে বড় আঘাত করেছে। অজি সাংবাদিকের তীর্যক মন্তব্যের জবাবে ভারতের ক্রিকটপ্রেমীরা লিখেছেন, 'আমাদের ব্যাটসম্যানরা সব সময়ই বিপক্ষকে ক্লিন সুইপ করতে পছন্দ করে।'

শুধু তাই নয়, একধাপ এগিয়ে আরেক কোহলি ভক্ত লিখেছেন, 'অজি সফরে আগে ছবিটা অবশ্যই প্রাসঙ্গিক। কোহলি অজিদের কিভাবে সুইপ করে ধবল ধোলাই করবেন তারই প্রস্তুতি এটা।'

সম্পাদক : ইমদাদুল হক মিলন,
নির্বাহী সম্পাদক : মোস্তফা কামাল,
ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের পক্ষে ময়নাল হোসেন চৌধুরী কর্তৃক প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বসুন্ধরা, বারিধারা থেকে প্রকাশিত এবং প্লট-সি/৫২, ব্লক-কে, বসুন্ধরা, খিলক্ষেত, বাড্ডা, ঢাকা-১২২৯ থেকে মুদ্রিত।
বার্তা ও সম্পাদকীয় বিভাগ : বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা, প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বারিধারা, ঢাকা-১২২৯। পিএবিএক্স : ০২৮৪০২৩৭২-৭৫, ফ্যাক্স : ৮৪০২৩৬৮-৯, বিজ্ঞাপন ফোন : ৮১৫৮০১২, ৮৪০২০৪৮, বিজ্ঞাপন ফ্যাক্স : ৮১৫৮৮৬২, ৮৪০২০৪৭। E-mail : info@kalerkantho.com