logo
আপডেট : ১৬ এপ্রিল, ২০১৮ ০২:১৬
মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও প্রজন্ম সমন্বয় পরিষদের সমাবেশ
চাকরিতে স্বাধীনতাবিরোধীদের নিয়োগ বন্ধসহ ছয় দফা দাবি
৩০ এপ্রিল মহাসমাবেশ

চাকরিতে স্বাধীনতাবিরোধীদের নিয়োগ বন্ধসহ ছয় দফা দাবি

ছয় দফা দাবি বাস্তবায়নের দাবিতে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড গতকাল শাহবাগে সমাবেশ ও মিছিল বের করে। ছবি : কালের কণ্ঠ

সরকারি চাকরিতে জামায়াত, শিবির, রাজাকারসহ স্বাধীনতাবিরোধীদের নিয়োগ বন্ধসহ ছয় দফা দাবিতে রাজধানীতে সমাবেশ করেছে মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও প্রজন্ম সমন্বয় পরিষদ। দাবি পূরণে আগামী ৩০ এপ্রিল রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মহাসমাবেশ করা হবে। গতকাল রবিবার দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে আয়োজিত সমাবেশ থেকে এ কর্মসূচির ঘোষণা দেন শ্রমিক-কর্মচারী-পেশাজীবী মুক্তিযোদ্ধা সমন্বয় পরিষদের আহ্বায়ক ও নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান।

দাবিগুলো হলো—কোটা সংস্কারের আন্দোলনের নামে হত্যার গুজব ছড়িয়ে অরাজকতা, নাশকতা, নৈরাজ্য ও সন্ত্রাস সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করা; জামায়াত-শিবির, যুদ্ধাপরাধী ও স্বাধীনতাবিরোধী ব্যক্তি ও তাদের দলের সন্তানদের সরকারি চাকরিতে নিয়োগ বন্ধ করা; এ ধরনের যেসব ব্যক্তি বর্তমানে সরকারি চাকরিতে বহাল, তাদের চিহ্নিত করে চাকরি থেকে বরখাস্ত করা; যুদ্ধাপরাধীদের সব স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি সরকারের অনুকূলে বাজেয়াপ্ত করা; ২০১৩, ২০১৪ ও ২০১৫ সালে বিএনপি-জামায়াতের সরকারবিরোধী আন্দোলনে সহিংসতাকারীদের বিশেষ ট্রাইব্যুনাল গঠন করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করা এবং মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মান ক্ষুণ্নকারী, মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধু সম্পর্কে কটাক্ষকারীদের বিরুদ্ধে আইন প্রণয়ন করে বিচারের ব্যবস্থা করা।

সমাবেশে নৌমন্ত্রী বলেন, ‘আপনারা দেখেছেন কোটা সংস্কারের দাবিতে ছাত্ররা আন্দোলন করেছে। যেকোনো দাবি নিয়ে ছাত্ররা আন্দোলন করতেই পারে। কিন্তু ছাত্র আন্দোলনের আড়ালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে হত্যাচেষ্টাকারী তারা কারা? তাদের খুঁজে বের করতে হবে।’ ছাত্রদের উদ্দেশে শাজাহান খান বলেন, ‘তোমরা মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মান নাই করতে পার কিন্তু অপমান করতে পার না। কোটা নিয়ে বিভ্রান্তি সৃষ্টি করা হচ্ছে। এখন প্রশ্ন হলো—আমরা কাদের  মেধাবী বলব? আদর্শহীন কাউকে আমরা মেধাবী বলতে পারি না।’ মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষ শক্তিকে চাকরি দেওয়া যাবে না উল্লেখ করে নৌমন্ত্রী বলেন, ‘স্বাধীনতার বিপক্ষের  মেধাকে চাকরি দেওয়া যাবে না।

 

সম্পাদক : ইমদাদুল হক মিলন,
নির্বাহী সম্পাদক : মোস্তফা কামাল,
ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের পক্ষে ময়নাল হোসেন চৌধুরী কর্তৃক প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বসুন্ধরা, বারিধারা থেকে প্রকাশিত এবং প্লট-সি/৫২, ব্লক-কে, বসুন্ধরা, খিলক্ষেত, বাড্ডা, ঢাকা-১২২৯ থেকে মুদ্রিত।
বার্তা ও সম্পাদকীয় বিভাগ : বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা, প্লট-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বারিধারা, ঢাকা-১২২৯। পিএবিএক্স : ০২৮৪০২৩৭২-৭৫, ফ্যাক্স : ৮৪০২৩৬৮-৯, বিজ্ঞাপন ফোন : ৮১৫৮০১২, ৮৪০২০৪৮, বিজ্ঞাপন ফ্যাক্স : ৮১৫৮৮৬২, ৮৪০২০৪৭। E-mail : info@kalerkantho.com