kalerkantho


কোকেন চোরাচালান মামলা অধিকতর তদন্ত করবে র‌্যাব

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১২:৩১



কোকেন চোরাচালান মামলা অধিকতর তদন্ত করবে র‌্যাব

চট্টগ্রাম বন্দরে কোকেন জব্দের মামলায় চোরাচালানের ধারায় দাখিল করা নগর গোয়েন্দা পুলিশের অভিযোগপত্রের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষের নারাজি আবেদন গ্রহণ করেছেন আদালত।  মামলাটি অধিকতর তদন্তের জন্য র‌্যাবকে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

আজ বৃহস্পতিবার চট্টগ্রাম মহানগর দায়রা জজ মো. শাহে নূর এই আদেশ দিয়েছেন।

জানতে চাইলে মহানগর পিপি ফখরুদ্দিন চৌধুরী বলেন, মামলার নথিপত্র এবং অভিযোগপত্র পর্যালোচনা করে আমাদের কাছে মনে হয়েছে, চোরাচালানের ধারার তদন্ত সঠিকভাবে হয়নি।  প্রধান আসামি নূর মোহাম্মদকে অভিযোগপত্রে বাদ দেয়ার বিষয়টি গ্রহণযোগ্য মনে হয়নি।  সে জন্য অধিকতর তদন্ত চেয়েছিলাম।  আদালত র‌্যাবকে দায়িত্ব দিয়েছেন।

চট্টগ্রাম বন্দরে আসা সূর্যমুখী তেলের চালান থেকে কোকেন জব্দের ঘটনায় প্রথমে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ১৯ (১) এর ১(খ) ও ৩৩ (১)/২৫ ধারায় মামলা দায়ের হয়েছিল।  পরে আদালতের নির্দেশে চোরাচালান সংক্রান্ত বিশেষ ক্ষমতা আইনের ২৫ (বি) ধারা সংযুক্ত করা হয়। মাদক আইনের অভিযোগ তদন্ত করে অভিযোগপত্র দেয় র‌্যাব।  

২০১৫ সালের ৬ জুন নগর গোয়েন্দা পুলিশের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে চট্টগ্রাম বন্দরে বলিভিয়া থেকে আসা সূর্যমুখী তেলের চালান জব্দ করে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তর।

২৭ জুন তেলের চালানের ১০৭টি ড্রামের মধ্যে ১টি ড্রামের নমুনায় কোকেন শনাক্ত হয়। পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি), মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের রাসায়নিক পরীক্ষাগারসহ চারটি পরীক্ষাগারে তেলের চালানের দুটি ড্রামের (৯৬ ও ৫৯ নম্বর) নমুনায় কোকেন শনাক্ত হয়। কোকেন জব্দের ঘটনায় নগরীর বন্দর থানায় ২০১৫ সালের ২৭ জুন মামলা দায়ের হয়।

 


মন্তব্য