kalerkantho


রেসিপি

বিকেলের নাশতায়

বিকেলের নাশতায় সবাই মুখরোচক খাবার পছন্দ করে। তেমনই কিছু স্বাস্থ্যকর বিকেলের নাশতার রেসিপি দিয়েছেন রোকসানা রিমা

২২ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



বিকেলের নাশতায়

পকেট কুশলী

উপকরণ

রান্না করা মাংস ঝুরি ১ কাপ, পেঁয়াজ কুচি আধা কাপ, কাঁচা মরিচ কুচি ২ চা চামচ, ময়দা ১ কাপ, টমেটো সস আধা কাপ, লবণ স্বাদমতো, সয়াবিন তেল প্রয়োজন অনুযায়ী।

 যেভাবে তৈরি করবেন

১.         ময়দায় ২ টেবিল চামচ তেল আর লবণের সঙ্গে সামান্য পানি দিয়ে মেখে ডো তৈরি করুন।

২.         ফ্রাইপ্যানে আধা কাপ তেল দিয়ে  পেঁয়াজ, কাঁচা মরিচ কুচি  ও  সামান্য লবণ দিন। বাদামি হলে তার মধ্যে রান্না করা ঝুরি মাংস দিয়ে নেড়ে ভাজা ভাজা হলে টমেটো সস দিয়ে নামিয়ে নিন।

৩.        এখন ময়দার ডো নিয়ে রুটির আকারে পাতলা করে বেলে ভেতরে পুর ভরে আটকে দিয়ে সাইডটি কাঁটা চামচ দিয়ে আটকে দিন।

 

৪.         ফ্রাইপ্যানে তেল দিয়ে গরম করে পিঠা এপিঠ-ওপিঠ করে ভেজে তুলে পরিবেশন করুন।

ডিম-কাঁচাকলার ঝাল বড়া


উপকরণ

ডিম সিদ্ধ ৫টি, কাঁচাকলা ২টি, চালের গুঁড়া আধা কাপ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ, কাঁচা মরিচ কুচি ১ টেবিল চামচ, 

গোলমরিচ গুঁড়া আধা চা চামচ, হলুদ সামান্য, ধনেপাতা কুচি ২ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, সয়াবিন তেল ভাজার জন্য।

যেভাবে তৈরি করবেন

১.         কাঁচাকলা ছোট করে কেটে নিয়ে ধনেপাতা, ডিম, চালের গুঁড়া, তেল বাদে সব মসলা দিয়ে মাখিয়ে নিন।

২.         ২ টেবিল চামচ তেল আর সামান্য পানি দিয়ে সিদ্ধ করে নিন।

৩.        সিদ্ধ হয়ে গেলে চালের গুঁড়া, ধনেপাতা দিয়ে ভালোভাবে মাখিয়ে নিয়ে ছোট ডো বানিয়ে সিদ্ধ ডিম ভেতরে দিয়ে আটকে দিন।

৪.         পাত্রে তেল দিয়ে গরম করে ভেজে নিন। সব ভাজা হয়ে গেলে ধনেপাতার চাটনি বা যেকোনো চাটনির সঙ্গে পরিবেশন করুন।


মাছ পিঠা

উপকরণ

ময়দা ১ কাপ, তেলাপিয়া মাছ সিদ্ধ ১ কাপ, সয়াবিন তেল প্রয়োজন অনুযায়ী, পেঁয়াজ কুচি আধা কাপ, কাঁচা মরিচ কুচি ২ চা চামচ, গাজর কুচি আধা কাপ, বাঁধাকপি কুচি আধা কাপ, লবণ স্বাদমতো, ধনেপাতা কুচি ইচ্ছা অনুযায়ী।

যেভাবে তৈরি করবেন

১. ময়দায় ২ টেবিল চামচ তেল, লবণ আর সামান্য পানি দিয়ে মাখিয়ে ডো তৈরি করে নিন।

২. পাত্রে সামান্য তেল দিয়ে তাতে পেঁয়াজ, কাঁচা মরিচ কুচি, লবণ আর সবজি দিয়ে সিদ্ধ হওয়া পর্যন্ত ভেজে নিন।

৩. এখন মাছ দিয়ে নাড়তে থাকুন। ভালোভাবে মিশে গেলে নামিয়ে নিন।

৪. ময়দার ডো থেকে লম্বা করে বেলে নিন। দুই পাশে চাকু দিয়ে কেটে মাঝখানে পুর দিয়ে দুই পাশ থেকে আটকে দিয়ে মাছের আকৃতি করুন। এখন ডুবো তেলে ভেজে তুলে নিন।


ঝাল চিতই


উপকরণ

কালাইয়ের ডাল গুঁড়া আধা কাপ, চালের গুঁড়া আধা কাপ, ডিম ফেটানো ১টি, কাঁচা মরিচ বাটা ১ চা চামচ, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ, ধনেপাতা কুচি ২ টেবিল চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, হলুদ গুঁড়া সামান্য, লবণ স্বাদমতো, সয়াবিন তেল ২ টেবিল চামচ।

যেভাবে তৈরি করবেন

১.         তেল বাদে সব উপকরণ একসঙ্গে ভালোভাবে মিশিয়ে নিন।

২.         হালকা গরম পানি দিয়ে সব গুলিয়ে নিন। ১ ঘণ্টা রাখুন।

৩.        কড়াইয়ে তেল ব্রাশ করে তার ওপর এক ডাব্বু পরিমাণ বাটার দিয়ে অল্প আঁচে বানাতে হবে। এভাবে সিব পিঠা বানিয়ে নিন।


ডিম-পনির কুশলী


উপকরণ

ডিম ফেটানো ২টি, আলু কুচি ১ কাপ,  পেঁয়াজ কুচি আধা কাপ, পনির কুচি আধা কাপ, কাঁচা মরিচ কুচি ১ চা চামচ, গোলমরিচ গুঁড়ো সিকি চা চামচ, ময়দা ১ কাপ, লবণ স্বাদমতো, সয়াবিন তেল পরিমানমতো।

যেভাবে তৈরি করবেন

১.         ময়দায় সামান্য তেল, লবণ আর পানি দিয়ে মেখে ডো তৈরি করে নিন।

২.         ফ্রাইপ্যানে আধা কাপ তেল দিয়ে পেঁয়াজ, কাঁচা মরিচ কুচি বাদামি করে ভাজুন।

৩.        আলু আর লবণ দিয়ে অল্প আঁচে ঢেকে রাখুন। ভাজা ভাজা হলে ফেটানো ডিম দিয়ে নাড়তে থাকুন। ঝুরি হলে পনির মিশিয়ে নাড়াচাড়া করে নামিয়ে ফেলুন।

৪.         ময়দার খামির থেকে লেচি কেটে রুটির আকারে বেলে স্টিলের গ্লাস দিয়ে গোল করে কেটে নিন। এক টুকরার ওপর পুর দিয়ে আরেক টুকরা দিয়ে ঢেকে দিয়ে কাঁটাচামচ দিয়ে চারপাশ আটকে দিন।

৫.         ডুবো তেলে ভেজে গরম সসের সঙ্গে পরিবেশন করুন।


ঝাল কদম


উপকরণ

সিদ্ধ আলু ২টি বড়, সিদ্ধ ডিমের কুসুম ৫টি, পাউরুটি ৩ পিস, রসুন বাটা ১ চা চামচ, কাঁচা মরিচ কুচি ১ চামচ, মরিচের গুঁড়া আধা চা চামচ, জিরা ভাজা গুঁড়া ১ চা চামচ, ডিম ফেটানো ১টি, ব্রেডক্রাম আধা কাপ, লবণ স্বাদমতো, তেল ভাজার জন্য।

যেভাবে তৈরি করবেন

১.         পাউরুটি পানিতে ভিজিয়ে সিদ্ধ আলু আর ডিমের কুসুমের সঙ্গে চটকে নিন।

২.         এখন তেল, ডিম, ব্রেডক্রাম বাদে সব উপকরণ একসঙ্গে ভালোভাবে মিশিয়ে নিন।

৩.        এখন ডিমের গোলায় চুবিয়ে ব্রেডক্রামে ভালোভাবে জড়িয়ে নিয়ে রেফ্রিজারেটরে ১ ঘণ্টা রাখুন।

৪.         ১ ঘণ্টা পর ডুবো তেলে মাঝারি আঁচে ভেজে নিন। সব ভাজা হলে গরম গরম পরিবেশন করুন।

ঘোষণা
প্রিয় পাঠক

এ-টু-জেডে এখন থেকে আপনাদের পাঠানো রেসিপি ছাপা হবে। আপনার অঞ্চলের বিখ্যাত যেকোনো খাবারের রেসিপি পাঠাতে পারেন। থাকতে পারে আপনার তৈরি সুস্বাদু কোন খাবারের রেসিপিও। রেসিপির সঙ্গে অবশ্যই ভালো মানের ছবি ও যোগাযোগের নম্বর দিতে ভুলবেন না। এ ছাড়া এ-টু-জেডে প্রকাশিত রেসিপি নিয়ে আপনার কোন মতামত থাকলে জানাতে পারেন। ঠিকানা : a2z@kalerkantho.com


মন্তব্য