kalerkantho


ভেষজ দাওয়াই

শীতকালীন বাতব্যাধির ভেষজ দাওয়াই

শীতকালে হাঁটু, পায়ের গোড়ালি ও পায়ের আঙুলের গ্রন্থিতে ব্যথা হয়। উঠতে-বসতে ও চলাফেরা করতে কষ্ট হয়। অনেক সময় এসব গ্রন্থি শক্ত হয়ে যায়। এ সময় গেঁটে বাত বা বাতব্যাধির ভেষজ দাওয়াই দিলেন তিব্বিয়া হাবিবিয়া কলেজের অধ্যক্ষ হাকিম ফেরদৌস ওয়াহিদ

২২ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



শীতকালীন বাতব্যাধির ভেষজ দাওয়াই

*          বাঙ্গিবীজ ৯ গ্রাম, শসাবীজ ৬ গ্রাম। উভয় দ্রব্য অর্ধকুটা করে ১২০ মিলিলিটার পানি সহযোগে পিষে ছেঁকে সকালে খালি পেটে এবং একইভাবে সন্ধ্যায় খালি পেটে সেবন করুন এক মাস।

*          নিশিন্দাপাতা ৫ গ্রাম, লং ৫টি একত্রে পাটায় পিষে সকালে ও সন্ধ্যায় খালি পেটে সেবন করুন ১৫ দিন।

*          গোয়ালে লতা (হংসরাজ) ৭ গ্রাম, মৌরি ৭ গ্রাম একত্রে বেটে সকালে ও সন্ধ্যায় ২০ দিন সেবন করুন।

*          শ্বগন্ধা চূর্ণ ১ চা চামচ, ১ কাপ ছাগলের দুধে মিশিয়ে সকাল ও সন্ধ্যায় এক মাস সেবন করলে উপকার হয়।

*          অনন্তমূল ৫ গ্রাম, গোলমরিচ ৫টি একত্রে

*          চোবচিনি ৫ গ্রাম পরিমাণ ২ কাপ গরম পানিতে ১২ ঘণ্টা ভিজিয়ে হালকা আঁচে জ্বাল দিয়ে অর্ধেক হলে ছেঁকে তাতে ২ চা চামচ মধুসহ সকালে বেটে সকালে ও সন্ধ্যায় খালি পেটে এক মাস সেবন করলে উপকার পাওয়া যায়।
*          খালি পেটে এবং সকালে ভিজিয়ে সন্ধ্যায় খালি পেটে এক মাস সেবন করলে উপকার দর্শে।

*          জায়ফল বীজ চূর্ণ ২ গ্রাম, ২ চা চামচ মধুসহ সকাল-সন্ধ্যা এক মাস সেবন করলে বাতব্যথায় আরাম পাওয়া যায়।

*          নাগেশ্বরপাতা ও ফুল ৫ গ্রাম, ৩ কাপ গরম পানিতে রাতে ভিজিয়ে সকালে জ্বাল দিয়ে অর্ধেক হলে ছেঁকে খালি পেটে এবং সকালে ভিজিয়ে একই নিয়মে সন্ধ্যায় সেবন করুন ১৫ দিন, গেঁটে বাতে আরাম পাবেন।

*          পুনর্নবা গাছসমেত ১০ গ্রাম, ৩ কাপ গরম পানিতে ১২ ঘণ্টা ভিজিয়ে হালকা তাপে জ্বাল দিয়ে অর্ধেক হলে ছেঁকে সকালে ও সন্ধ্যায় খালি পেটে এক মাস সেবন করলে উপকার দর্শে।

*          আকন্দপাতা ২৫০ গ্রাম, ধুতরা ফল ৪টি, রসুন ২০০ গ্রাম, সরিষার তেল ৫০০ মিলিলিটার একত্রে জ্বাল দিয়ে পাতা ও ফল লালচে রং হয়ে গেলে নামিয়ে সংরক্ষণ করুন। কুসুম গরম করে ব্যথার স্থানে দুইবার লাগান। আরাম পাবেন।


মন্তব্য