kalerkantho


ফরিদপুরে গৃহবধূ ও অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির লাশ উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক, ফরিদপুর    

১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৮:৫০



ফরিদপুরে গৃহবধূ ও অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির লাশ উদ্ধার

ফরিদপুরের চরভদ্রাসন ও আলফাডাঙ্গা উপজেলা থেকে এক গৃহবধূ ও এক অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

চরভদ্রাসনের গাজীরটেক ইউনিয়নের ব্যাপারীডাঙ্গি গ্রামের শ্বশুর বাড়িতে গতকাল মঙ্গলবার রাতে সোনিয়া আক্তার (২২) নামের এক গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে।

খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য তা ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। এ ব্যাপারে আজ বুধবার থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

সোনিয়ার চাচা শেখ পান্নু বলেন, "গতকাল মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে  সোনিয়ার অসুস্থতার খবর পেয়ে ওই বাড়িতে গিয়ে উঠানে সোনিয়ার লাশ পড়ে থাকতে দেখি। এ সময় তার নাক থেকে রক্ত ঝরছিল। এ ছাড়া সোনিয়ার গলার কাছে আঘাতের চিহ্ন ও ঘরের মেঝেতে রক্তের দাগ দেখা গেছে। " সোনিয়াকে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেন তিনি। তার দেড় বছরের একটি মেয়ে রয়েছে।

নিহত সোনিয়ার শাশুড়ি কালাভানু বলেন, "স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহের জের ধরে সোনিয়া আত্মহত্যা করেছে। "

চরভদ্রাসন থানার এসআই স্বপন কুমার জানান, খবর পেয়ে ওই রাতেই লাশ উদ্ধার করে থানায় আনা হয়।

পরে আজ বুধবার সকালে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে। তিনি বলেন, "এ ঘটনায় চরভদ্রাসন থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। "

এদিকে, আজ বুধবার দুপুরে জেলার আলফাডাঙ্গা উপজেলার টিটাপানাইল গ্রামের মধুমতি নদীর পাড় থেকে পুলিশ এক অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করা হয়। পরে ময়নাতদন্তের জন্য তা মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে একটি জিডি হয়েছে বলে জানিয়েছেন আলফাডাঙ্গা থানার ওসি মো. নাজমুল করিম।


মন্তব্য