kalerkantho


গরু পাহারা না দিয়ে খেলার অপরাধ

গর্ভধারিণী মা ৩ ঘণ্টা বেঁধে রাখলেন ৫ বছরের এই শিশুপুত্রকে

নিজস্ব প্রতিবেদক, বান্দরবান   

১৪ নভেম্বর, ২০১৭ ২১:৫৩



গর্ভধারিণী মা ৩ ঘণ্টা বেঁধে রাখলেন ৫ বছরের এই শিশুপুত্রকে

ছবি: কালের কণ্ঠ

গরু ক্ষেতের পাকা ধান খেয়ে ফেলার অপরাধে নিজ জননীর হাতে নির্যাতনের শিকার হয়েছে বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারি হলুদিয়াশিয়া গ্রামের ৫ বছরের শিশু জিহাদুল ইসলাম জিহাদ।

মঙ্গলবার ১৪ নভেম্বর দুপুর ২টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত একটি গাছের সঙ্গে গরুর রশি দিয়ে বেঁধে মা তাকে শাস্তি দেয়।

বিকেল ৫টায় স্থানীয়রা এসে রশি খুলে দিয়ে তাকে মুক্ত করে।

উত্তর হলুদিশিয়া পাড়া কেন্দ্রের শিক্ষক ও বাইশারি ইউনিয়নের সংরক্ষিত নারী আসনে নির্বাচিত ইউপি সদস্যা সেলিন আকতার বেবী জানান, জিহাদ তার স্কুলের প্রাক প্রাথমিক শাখার ছাত্র। তাকে রশি দিয়ে গাছের সঙ্গে বেঁধে রাখার খবর শুনে তিনি তার বড় ভাই মোহাম্মদ ইউনুসকে সেখানে পাঠিয়ে শিশুটিকে বাঁধন খুলে দেয়ার ব্যবস্থা করেন।

ইউনিসেফ সাহায্যপুষ্ট পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের সমন্বিত সমাজ উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় পরিচালিত উত্তর হলুদিশিয়া পাড়া কেন্দ্রের ছাত্র জিহাদুল ইসলাম জিহাদকে মঙ্গলবার দুপুরে তার মা গরু পাহারা দেয়ার দায়িত্ব দেয়। কিন্তু পাহারা ভুলে খেলায় মেতে ওঠার সুযোগে একটি গরু ক্ষেতের পাকা ধান খেয়ে ফেলায় ক্ষিপ্ত হয়ে তার গর্ভধারিণী মা মোমেনা আকতার (২৫) এই বর্বর ঘটনা ঘটায়।

বাইশারি ইউপি চেয়ারম্যান আলম কম্পানিও ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

স্থানীয় সূত্র জানায়, শিশুটির পিতা দিনমজুর আলী আকবর সন্ধ্যায় বাড়ি ফিরে এ ঘটনা জানতে পারেন। তবে শিশু নির্যাতনের এ ঘটনায় পুলিশ বা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের পক্ষ থেকে কোনো ব্যবস্থা নেয়া হয়নি।


মন্তব্য