kalerkantho


দুবাইয়ে মাথায় ক্রেন পড়ে বাংলাদেশি নিহত

মাদারীপুর প্রতিনিধি   

২২ মার্চ, ২০১৮ ২১:১৮



দুবাইয়ে মাথায় ক্রেন পড়ে বাংলাদেশি নিহত

দুবাইয়ে নির্মাণ শ্রমিক হিসেবে কাজ করার সময় উপর থেকে ক্রেনের রশি ছিঁড়ে মাথায় পড়ে মাদারীপুর শিবচরের আ. মান্নান খান নামের একজন প্রবাসী মারা গেছে। একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যাক্তিকে হারিয়ে পরিবারে চলছে শোকের মাতম।

স্থানীয় ও পরিবারের সদস্যরা জানান, সংসারের অভাব অনটনকে ঘুচিয়ে ভাগ্য পরিবর্তনের আশায় প্রায় ৮ বছর আগে মাদারীপুরের শিবচরের উমেদপুর গ্রামের দিনমজুর গেদু খানের ছেলে মান্নান খান (৪৫) দুবাইয়ে পাড়ি জমায়। সেখানে দুবাইয়ের ফ্রেবিক্স কোম্পানিতে নির্মাণ শ্রমিক হিসেবে স্বল্প মজুরিতে কাজ শুরু করে মান্নান। প্রতিমাসে দুবাই থেকে যা টাকা পাঠাতো তা দিয়েই বাবা, মা, স্ত্রী, ১ ছেলে, ২ মেয়েসহ ৬ জনের ভরণ পোষণ চলত।

জানা যায়, ১১ মার্চ রবিবার বাংলাদেশি সময় আনুমানিক সাড়ে ১২ টার দিকে দুবাইয়ের আবুদাবি শহরের একটি ২৭ তলা ভবনের নির্মাণ কাজ করছিল মান্নান। এ সময় হঠাৎ উপর থেকে একটি ক্রেনের রশি ছিড়ে মান্নান খানের উপর নির্মাণ সামগ্রী পড়ে গেলে ঘটনাস্থলেই তার মর্মান্তিক মৃত্যু হয়। 

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে বাংলাদেশে তার লাশ এসে পৌছায়। বাদ মাগরিব পারিবারিক কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন করা হয় বলে জানা যায়।

এদিকে তার মৃত্যুতে পরিবারে নেমে এসেছে শোকের মাতম। একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যাক্তিকে হারিয়ে অনিশ্চয়তায় পড়েছে ৩ সন্তানের ভবিষ্যৎ। কোম্পানীর কাছে ক্ষতিপূরণের দাবী করেছে পরিবারের লোকজন ও এলাকাবাসী।

তার সাথে থাকা নিকটতম এক আত্মীয় রফিক মিয়া মোবাইল ফোনে জানান, মান্নান ও আমি দীর্ঘদিন ধরে দুবাইয়ের ফ্রেবিক্স কোম্পানিতে নির্মাণ শ্রমিক হিসেবে কাজ করে আসছি। সেদিন কাজ করার সময় নির্মাণ সামগ্রীসহ একটি ক্রেন উপর থেকে তার ওপর পড়ে গেলে মৃত্যু হয়। পরে কোম্পানির লোকজনের সার্বিক সহযোগীতায় বৃহস্পতিবার দুপুরে বাংলাদেশ এয়ারে তার লাশ এসে পৌঁছায়। 

নিহত মান্নান খানের স্ত্রী রুনা বেগম জানান, সংসারের একমাত্র উপার্জনকারী স্বামীকে হারিয়েছি। আমার ৩টি অবুঝ শিশুর ভবিষ্যৎ নিয়ে আমি চিন্তিত। তাই কোম্পানীর কাছে ক্ষতিপূরণ দাবী করছি।


মন্তব্য