kalerkantho


মাদক সেবনের দায়ে জয়পুরহাটে মেম্বারসহ ১০ জনের কারাদণ্ড

জয়পুরহাট প্রতিনিধি   

২৩ জুন, ২০১৮ ২১:০৫



মাদক সেবনের দায়ে জয়পুরহাটে মেম্বারসহ ১০ জনের কারাদণ্ড

জয়পুরহাট সদর উপজেলার পুরানাপৈল বাজারের একটি বাসা থেকে মাদক সেবন ও জুয়াখেলা অবস্থায় দু’জন ইউপি সদস্যসহ ১০জনকে আটক করেছে জয়পুরহাট র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব-৫) এর সদস্যরা।

ওই সময় আসর থেকে ১০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট ও ইয়াবা সেবনের সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়। পরে ওই ১০জনকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেওয়া হয়েছে। শনিবার বিকেল ৫টার দিকে ওই অভিযান চালানো হয়।
    
র‌্যাব সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন থেকে পুরানাপৈল এলাকার একটি ভাড়ার বাসায় পুরানাপৈল ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্য মোতাহার হোসেন জুয়ার আসর চালিয়ে আসছিলেন। সেখানে মাদক সেবন ও বেচা-কেনা করা হতো।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জয়পুরহাট র‌্যাব-৫ ক্যাম্পের কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. শামীম হোসেন এর নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে শনিবার বিকেলে ইউপি সদস্য মোতাহার আলী ও দেলোয়ার হোসেন বাবু সহ ১০ জনকে আটক করা হয়।

আটক অন্যরা হলেন, পাঁচবিবি’র বড়তাজপুর গ্রামের মাসুদ আলী (৩০) বিরিঞ্চি গ্রামের তপন চন্দ্র (৩৪), বালিঘাটার নুরুজ্জামান (৪৮), পাঁচবিবি’র পারবাট্টা গ্রামের মামুনুর রশিদ (৪২) ও আতাউর রহমান (৩৬), সদরের পুরানাপৈল এলাকার জাহাঙ্গীর হোসেন (২৪), তুলাট গ্রামের মোস্তাফিজুর রহমান (৩৫) এবং হেলকুন্ডা গ্রামের শাহআলম (৪২)।

এদের মধ্যে ইউপি সদস্য মোতাহার আলীর কাছ থেকে ১০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার হওয়ায় তার বিরুদ্ধে জয়পুরহাট সদর থানায় মামলা দেওয়া ছাড়াও তাকে সহ ইউপি সদস্য দেলোয়ার হোসেন ও তপন চন্দ্রকে ২ মাসের সাজা দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ ছাড়া মাদক সেবনের অভিযোগে অন্য সাতজনকে ১ মাসের কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছে আদালত। ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মো. আব্দুল ওয়ারেছ আনসারী।

 



মন্তব্য