kalerkantho


আশুলিয়ায় বাউল শিল্পীকে ধর্ষণের ঘটনায় আটক ৪

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ আগস্ট, ২০১৭ ১৪:২৯



আশুলিয়ায় বাউল শিল্পীকে ধর্ষণের ঘটনায় আটক ৪

আশুলিয়ায় এক বাউল শিল্পীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় চারজনকে আটক করা হয়েছে। গত বুধবার গভীর রাতে সাভার আশুলিয়ার ইউনিয়নের আউকপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আজ শুক্রবার সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন আশুলিয়ার থানা পুলিশ।  

এ বিষয়ে আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শামীম আহম্মেদ বলেন, ঘটনাস্থল থেকে ধর্ষণের আলামত উদ্ধার করা হয়েছে। ধর্ষণের সাথে জড়িতদের আটকের জন্য পুলিশের একাধিক টিম অভিযান চালাচ্ছে। বেলমা, আড়াগাও, আউকপাড়া বস্তি থেকে রাজ্জাকসহ চারজনকে আটক করেছে করা হয়েছে।  

এ প্রসঙ্গে স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুল খালেক বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ঘটনায় সাথে জড়িত প্রধান অভিযুক্ত আব্দুল কাদির হোসেন বাক্কু ওরফে মেজ ভাইকে আটক করা সম্ভব হয়নি।  

এ ব্যাপারে আশুলিয়া থানার ওসি আবদুল আউয়াল বলেন, তরুণীকে একটি কক্ষে আটকে রেখে মাথায় অস্ত্র ঠেকিয়ে গণধর্ষণ করা হয়।  ধর্ষণ মামলার আসামি দেহরক্ষী রাজ্জাকসহ চারজনকে আটক করা হয়েছে।  

এদিকে হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, গণধর্ষণের শিকার নারীকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

প্রসঙ্গত, গানের অনুষ্ঠানের কথা বলে ওই নারী শিল্পীকে নারায়ণগঞ্জ থেকে আশুলিয়ার আউকপাড়া স্থানীয় শহিদুল্লাহর খামার বাড়িতে ডেকে আনা হয়। সেখানেই একটি ঘরে আটকে রেখে অস্ত্র ঠেকিয়ে জিম্মি করে ১০/১২ জন ব্যক্তি তাকে রাতভর ধর্ষণ করে। ধর্ষণের ঘটনার ভিডিও ধারণ করা হয়। পরে এ ঘটনায় ১২ জনকে আসামি করে বৃহস্পতিবার আশুলিয়া থানায় একটি সংঘবদ্ধ ধর্ষণের মামলা করা হয়।

ঘটনার শিকার ওই নারীর পরিবার জানায়, ধর্ষণকারীরা ও তাদের পরিবারের সদস্যরা মামলা তুলে নিতে হুমকি দিয়েছে।


মন্তব্য