kalerkantho


চার জেলায় বন্দুকযুদ্ধে পাঁচ মাদক বিক্রেতা নিহত

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ জুলাই, ২০১৮ ১০:৪৭



চার জেলায় বন্দুকযুদ্ধে পাঁচ মাদক বিক্রেতা নিহত

র‌্যাব-পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে পাঁচজন নিহত হয়েছেন। কুষ্টিয়া, লক্ষ্মীপুর, কেরানীগঞ্জ ও নাটোরে এ ঘটনা ঘটে। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর দাবি, নিহত সবাই চিহ্নিত মাদক বিক্রেতা। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১১টা থেকে বুধবার ভোরের মধ্যে এসব বন্দুকযুদ্ধ হয়। এর মধ্যে কুষ্টিয়ায় দুইজন, লক্ষ্মীপুর, কেরানীগঞ্জ ও নাটোরে একজন করে মোট পাঁচজন নিহত হন।

র‌্যাব-১২, সিপিসি-১, কুষ্টিয়া ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার মোহাইমিনুল বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, কুষ্টিয়ার মিরপুরে র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ফুটু ওরফে মোন্না (৩৫) ও রাসেল আহম্মেদ (৩০) নামে দুই মাদক বিক্রেতা নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় দুই র‌্যাব সদস্য আহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ অস্ত্র, গুলি ও মাদকদ্রব্য জব্দ করেছে।

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে সোহেল রানা ওরফে সুরাইয়া সোহেল (৩২) নামে এক মাদক বিক্রেতা নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় দুই পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ একটি এলজি, তিন রাউন্ড গুলি, ছয় রাউন্ড গুলির খোসা এবং ৩শ’ পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে। রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজিজুর রহমান মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, নিহত সোহেল রানা হত্যা, ডাকাতি ও মাদকসহ ২২ মামলা পলাতক আসামি ছিলেন।

কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের বিষয়টি নিশ্চিত তরেছেন। তিনি জানান, কেরানীগঞ্জে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে মো. নুরা ওরফে নুরু (৪৫) নামে এক মাদক বিক্রেতা নিহত হয়েছেন। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলায় র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ওসমান গণি (৩৮) নামে এক মাদক বিক্রেতা নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় দুই র‌্যাব সদস্য আহত হয়েছে। র‍্যাব-৫, নাটোর ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার মেজর শিবলী মোস্তফা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, অভিযানে ঘটনাস্থল থেকে বিদেশি পিস্তল, গুলি ভর্তি ম্যাগাজিন, পিস্তলের গুলির খালি খোসা, হেরোইন, নগদ টাকা, চার্জার লাইট, দুটি গ্যাস লাইট, মোবাইল ফোন, দুটি ডার্বি সিগারেটের প্যাকেট এবং বিভিন্ন কালারের সাতটি স্যান্ডেল উদ্ধার করা হয়েছে। বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলিপ কুমার দাস জানান, নিহত ব্যক্তির বিরুদ্ধে জেলার বিভিন্ন থানায় মাদক ও চাঁদাবাজিসহ অন্তত পাঁচটি মামলা রয়েছে। জেলার অন্যতম শীর্ষ মাদক বিক্রেতা হিসেবেও তার পরিচিত রয়েছে।

 



মন্তব্য