kalerkantho


রাবিনাকে কেন মানসিক ভারসাম্যহীন বলেছিলেন অজয়?

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৪ মার্চ, ২০১৮ ১৭:৫৫



রাবিনাকে কেন মানসিক ভারসাম্যহীন বলেছিলেন অজয়?

কাজলের সঙ্গে বিয়ে হওয়ার আগে গুজব শোনা যায় অজয় দেবগণ নাকি কারিশ্মা কাপূরের সঙ্গে প্রেম করতেন। শুধু কারিশ্মাই নয় একটা সময় নাকি রাবিনা ট্যান্ডনের সঙ্গেও গভীর সম্পর্ক ছিল অজয়ের। শোনা যায় কারিশ্মার কারণেই নাকি অজয়-রাবিনার সম্পর্ক ভেঙে যায়। অজয়-রাবিনার ব্রেক আপের পর রাবিনা অজয়ের নামে যা তা বলে বেড়াছিলেন। এমনকি তিনি আত্মহত্যারও চেষ্টা করেন। সেই সময় অজয় একটা সাক্ষাৎকার দেন। তিনি রাবিনার সঙ্গে সব সম্পর্কের কথা অস্বীকার করেন। এবং একই সঙ্গে রাবিনাকে মিথ্যাবাদী এবং মানসিক ভারসাম্যহীন বলেন। 

আসুন দেখে নিন ওই সময় অজয় রাবিনা সম্পর্কে ঠিক কী বলেছিলেন।

অজয় সাক্ষাৎকারের শুরুতেই বলেন ‘আমি রাবিনার সম্বন্ধে এমন কিছু জানি তা প্রকাশ করলে ও আর কাউকে মুখ দেখাতে পারবে না। সবাই জানে ও জন্ম থেকে মিথ্যা কথা বলতে ওস্তাদ। তাই আমার সম্পর্কে ও যে বোকা বোকা কথাগুলো বলছে আমি তাতে পাত্তা দিই না। তবে এইবার ও বাড়বাড়ি করেছে। সব লিমিট ক্রস করে গেছে ও। আমার মনে হয় ওর এই মুহূর্তে একজন সাইক্রিয়াটিস্টের কাছে যাওয়া উচিত। ওর মাথায় গণ্ডগোল দেখা দিয়েছে। এখনি চিকিৎসা না করালে খুব তাড়াতাড়ি ওকে পাগলা-গারদে ভর্তি করতে হবে। ও যদি চায় আমিই ওকে ডাক্তারের কাছে নিয়ে যেতে পারি।‘

রাবিনা সেই সময় সবাইকে বলেছিলেন অজয়ের লেখা লাভলেটারগুলো তিনি প্রকাশ করে দেবেন। এই ব্যাপারে অজয়কে প্রশ্ন করা হলে উনি বলেন, ‘চিঠি? কোন চিঠি? ওকে প্লিজ বলুন চিঠিগুলো প্রকাশ করে দিতে। আমিও সেগুলো পড়ে দেখতে চাই। ও শুধুমাত্র পাবলিসিটির জন্য আমার সঙ্গে ওর নাম জুড়ে এইসব বলছে। ওর আত্মহত্যার চেষ্টাও শুধুমাত্র পাবলিসিটি গিমিক ছাড়া কিছুই নয়।'

অন্যদিকে রাবিনা অভিযোগ তোলেন অজয়ের করণে তাকে বহু ছবি থেকে বাদ দিয়ে দেওয়া হয়। এতে অজয় বলেন ‘আমি কোনদিন কোনো প্রযোজককে ওকে নিতেও বলিনি তেমনি ওকে বাদ দিতেও বলিনি। এত কিছুর পরেও আমি ওর সঙ্গে কাজ করতে রাজি ছিলাম। কিন্তু প্রযোজক যদি ওকে বাদ দিয়ে অন্য কাউকে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন সেখানে আমাকে দোষ দিয়ে কোনো লাভ নেই। রবিনা খুব ফার্সট্রেটেড।‘

অন্যদিকে একটা অনুষ্ঠানে রাবিনাকে অনুরোধ করা হয় কারিশ্মার সঙ্গে ছবি তোলার জন্য। তিনি তাতে বলেন ‘আমি ঝাঁটার সঙ্গে পোজ দেবো কিন্তু কারিশ্মার সঙ্গে নয়। সবাই জানে আমাদের মধ্যে বন্ধুত্ব নেই। একই জিনিস প্রযোজ্য অজয় দেবেগণের জন্যেও। ‘

পরে অজয় কারিশ্মাকে ছেড়ে কাজলকে বিয়ে করেন।


মন্তব্য