kalerkantho


জমেনি সালমানের হাইভোল্টেজ 'রেস ৩'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ জুন, ২০১৮ ১২:৩১



জমেনি সালমানের হাইভোল্টেজ 'রেস ৩'

একদল অত্যন্ত বিত্তশালী মানুষের ক্ষমতার লড়াই- যা অত্যন্ত দুর্বল। প্রচুর চাকচিক্য এবং অ্যাকশনের ব্যবহার 'রেস ৩'কে কোনোভাবেই সাহায্য করতে পারেনি। সালমান খান এই সিনেমাকে দাঁড় করানোর চেষ্টা করলেও দুর্বল এবং যাচ্ছেতাই স্ক্রিপ্টের কারণে সেই চেষ্টার সলিলসমাধি হয়েছে।

রেমো ডি'সুজা পরিচালিত 'রেস ৩' একদল দিশেহারা উন্মাদের নৃত্যে পরিণত হয়েছে। এই খেলায় প্রচুর খেলোয়াড় কিন্তু কেউই ঠিকমতো খেলতে পারেননি। সারা বিশ্বে অস্ত্র সরবরাহকারী পরিবারের শামশের সিং (অনিল কাপুর) কম্বোডিয়ার এক ব্যাঙ্কের হার্ডডিস্ক, কড়া নিরাপত্তা এড়িয়ে চুরি করতে চান, দেহ ব্যবসা চক্রের সঙ্গে জড়িত ভারতীয় রাজনীতিবিদদের ব্ল্যাকমেইল করার উদ্দেশ্যে। তাঁর স্বার্থপর ধূর্ত সহোদররা সকলেই পরস্পরকে টপকে ক্ষমতার দখল নিতে চায়।

বাজে চিত্রনাট্য, অতি বাজে ডায়লগ, আরো বাজে অভিনয়- সব মিলিয়ে ছবিটির আউটপুট নিয়ে ব্যাপক দুশ্চিন্তায় বিশেষজ্ঞমহল।

অনেক দর্শকই এই সিনেমায় সালমানের অভিনয় ও অ্যাকশন দুর্দান্ত- এসব বলে অত্যন্ত বেশি চ্যারিটি করবেন। তবে এই সিনেমার নির্মাতাদের এখনো সিনেমা তৈরির গুরুত্বপূর্ণ ধাপ এবং চরিত্র বাছাইয়ের জন্য কোন কোন বিষয়গুলো খেয়াল রাখতে হয়- তা শেখা বাকি। এই সিনেমায় না হয়েছে ঠিকমতো অ্যাকশন, না থ্রিল, না হয়েছে অভিনয়। শেষ পর্যন্ত দেখার জন্য দর্শকদের উত্তেজনাই ধরে রাখতে পারেননি পরিচালক। তবে সিনেমার ক্লাইম্যাক্সে এসে সালমান খান এবং ববি দেওল উভয়কেই জামা খুলিয়ে দর্শক টানার শেষ চেষ্টা করেছেন পরিচালক, যা কার্যত ব্যর্থ হয়েছে।

'রেস ৩' পরিবারের সবচেয়ে অভিজ্ঞ এবং দীর্ঘজীবী সদস্য অনিল কাপুর একমাত্র জানেন পরিবারে কে কী করতে পারে। বাদবাকি চরিত্র- জ্যাকলিন ফার্নন্দেজ, ববি দেওল, সাকিব সেলিম, ডেইজি শাহ- সিনেমায় যে কী করেছেন সে বিষয়ে তাঁদেরও স্পষ্ট ধারণা আছে কি-না এ বিষয়ে যথেষ্ট সন্দেহের অবকাশ রয়েছে। যেখানে কেন্দ্রীয় চরিত্র একজন খেই হারানো স্টান্টম্যানের মতো উড়ন্ত বুলেট এবং বিধ্বংসী গাড়ির  মধ্যে হাত-পা চালিয়ে সমস্ত হাই-ভোল্টেজ অ্যাকশনের দফারফা করে দেন, তখন বাকি চরিত্রদের থেকেই বা আর বেশি কিছু আশা কীভাবে করা যায়!

সিনেমায় সমস্ত অ্যাকশনের কৃতিত্ব যাকে দেওয়া হয়েছে, কোরিওগ্রাফার থমাস স্ট্রুথারস, তিনি ব্ল্যাক প্যান্থার, দা ডার্ক নাইট এবং ডানক্রিকে স্টান্ট সহকারী ছিলেন। আমরা নিঃসন্দেহে বলা যায়, এই অ্যাকশন থ্রিলারকে স্মরণীয় করে তুলতে যথেষ্ট গুরুত্ব দেননি। মনে হয় তিনি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব 'রেস ৩'-এর আতঙ্ক ভুলতে চেয়েছিলেন এবং সেটাই করেছেন।
সূত্র : এনডিটিভি



মন্তব্য