kalerkantho

horror-club-banner

হরর ক্লাব : চার্চের সেই অদ্ভুত সাদা নারী

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৩০ মার্চ, ২০১৭ ১৬:৩৯



হরর ক্লাব : চার্চের সেই অদ্ভুত সাদা নারী

বিশ্বের নানা দেশে বিভিন্ন সময় অনেকের ক্যামেরায় উঠে এসেছে ভূতের প্রমাণ, যার কোনো ব্যাখ্যা নেই। এসব ছবির সত্যাসত্য নিয়ে বিতর্ক থাকলেও বহু মানুষেরই শিরদাঁড়া দিয়ে শীতল স্রোত বয়ে যায় এ ছবি দেখে।

এ লেখায় তুলে ধরা হলো তেমন এক প্রমাণ। ধারাবাহিকভাবে এ ধরনের বেশ কয়েকটি ছবি প্রকাশিত হচ্ছে কালের কণ্ঠে। আজ পাচ্ছেন তার ২০ তম পর্ব।

চার্চের সেই অদ্ভুত সাদা নারী
ঘটনার সূত্রপাত আজ থেকে বহু বছর আগে। ইংল্যান্ডের ওরস্টেড চার্চে ১৯৭৫ সালে একটি ছবি তোলা হয়। সে ছবিতেই দেখা যায় অস্বাভাবিক সাদা এক নারী, যে নারীর কোনো অস্তিত্ব বাস্তবে ছিল না। তাহলে কী ছিল সেই নারী?
ডিয়ানে ও পিটার বের্থেলট তাদের ১২ বছর বয়সী পুত্রের সঙ্গে ওরস্টেড চার্চে যান। সে সফরের সময় তারা একটি ছবিও তোলেন। আর ছবি তোলার সময় তাদের সঙ্গে পরিবারের এই কয়জন সদস্য ছাড়া অন্য কেউ ছিল না।


কিন্তু ছবিটি প্রিন্ট করার পর সবার চক্ষু চড়কগাছ হয়ে ওঠে। কারণ মিসেস বের্থেলটের ছবিতে দেখা যায়, তার ঠিক পেছনেই সাদামতো এক নারী বসে রয়েছেন। তবে বাস্তবে সেখানে তেমন কেউ ছিল না।
হালকা রঙের পোশাক পরে ছিলেন সেই রহস্যময় নারী। তার দেহও ছিল অস্বাভাবিক সাদা।
এ ছবি প্রিন্ট করার পর তা নিয়ে সেই চার্চে অনুসন্ধানে যান পরিবারের সদস্যরা। অনুসন্ধানে জানা যায়, প্রায় একশ বছর আগে এ ধরনের এক নারী ছিলেন চার্চের প্রতিনিধি। জনশ্রুতি রয়েছে, মৃত্যুর পর থেকে সেখানেই তিনি বিচরণ করছেন। অবশ্য তাকে যখন দেখা যায় তখন বেশ কিছু অস্বাভাবিকতাও দেখা যায়। যেমন মিসেস বের্থেলটের ছবিটি তোলার সময়েও তিনি অসুস্থতা বোধ করছিলেন। তবে এর কারণ আর জানা যায়নি। কখনো জানা যাবে না বলেই অনেকের বিশ্বাস।


মন্তব্য