kalerkantho


সুখী জীবনের জন্য...

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২ জুন, ২০১৮ ০৮:২০



সুখী জীবনের জন্য...

ছবি অনলাইন

বিশুদ্ধ পানি পান করুন

আপনি যতটুকুই পানি খান না কেন, সোডা বা চিনিপূর্ণ পানীয় ত্যাগ করতে হবে। আর এসব পানীয় যখন পান করতে মন চাইবে, তখনই পানি খাবেন। তাহলে একদিকে যেমন পানি পর্যাপ্ত খাওয়া হবে, অন্যদিকে তেমনই ক্ষতিকর পানীয় থেকে দূরে থাকা হবে।

 

বাসায় জাঙ্ক ফুড রাখবেন না

এখন থেকে শুধু রান্নাঘরেই নয়, রেফ্রিজারেটরেও জাঙ্ক ফুড রাখবেন না। প্যাকেটজাত খাবার, চিপস কিংবা ফাস্টফুড এড়িয়ে চলাই হবে লক্ষ্য।

 

টুথব্রাশ বদলান সময়মতো

সাধারণ টুথব্রাশ বা ইলেকট্রিক, যাই ব্যবহার করেন না কেন এটি বদলাতে হয়। প্রতি তিন থেকে চার মাস অন্তর ব্যবহৃত ব্রাশ বদলানোর পরামর্শ দেয় আমেরিকান ডেন্টাল অ্যাসোসিয়েশন। যদি ইলেকট্রিক ব্রাশ ব্যবহার করে থাকেন, তবে ‘হেড’ বদলানো উচিত।

 

প্রতিদিন কৃতজ্ঞতা প্রকাশের বিষয় খুঁজুন

প্রতিদিনই আপনার জীবনে এমন কিছু আসে, যার কারণে তৃপ্ত হয় মন। প্রতিদিন এমন একটি বিষয় খুঁজে নিন, যা কিছু না কিছু ভালো বয়ে এনেছে।

 

সিঁড়ি বেয়ে উঠুন

প্রতিদিন ব্যায়াম স্বাস্থ্যের জন্যে ভালো। কিন্তু এটা সবার জন্যে এত সহজ কাজ নয়। আবার যারা নিয়মিত করেন, তাঁদের জন্যেও রুটিনমাফিক শরীরচর্চা চালিয়ে যাওয়া সহজ কাজ নয়। সবচেয়ে ভালো উপায় হলো, সিঁড়ি বেয়ে উঠবেন। এলিভেটর এড়িয়ে চলুন। অফিসের পথে কিছুটা হেঁটে যান।

 

বেশি বেশি ফল ও সবজি খান

খাদ্য তালিকা থেকে প্রক্রিয়াজাত খাবার বাদ দিন। সেখানে আরো বেশি ফল ও সবজি যোগ করুন। এগুলো আপনার দেহকে পুষ্টি দেবে। যথেষ্ট ভিটামিন, ফাইবার, খনিজ এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট মিলবে।

 

নিজের যত্ন নিন

শুধু খাবার বা ব্যায়ামই যথেষ্ট নয়। স্বাস্থ্যকর ও সুখী জীবনের জন্যে নিজের যত্ন-আত্তির দরকার আছে। আসলে এটি বাড়তি বিলাসিতা নয়। এটা আপনার দেহ ও মনের আকাঙ্ক্ষিত প্রাপ্য।  হতে পারে দু-এক দিন মনের মতো কিছু খেলেন কিংবা দূরে কোথাও ঘুরে আসলেন।

-- চিটশিট অবলম্বনে সাকিব সিকান্দার


মন্তব্য