kalerkantho


অনেক দেশের জাতীয় পতাকা কেন প্রায় একই রকমের হয়?

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ নভেম্বর, ২০১৭ ১৮:০৪



অনেক দেশের জাতীয় পতাকা কেন প্রায় একই রকমের হয়?

একটা বিষয় হয়তো খেয়াল করে দেখবেন, বেশ কিছু দেশের পতাকার রং এবং ডিজাইন প্রায় একই ধাঁচের। এমনিতেই এমনটা হয় না।

এর পেছনে ঐতিহাসিক, সাংস্কৃতিক কিংবা কলোনিয়াল কারণ থাকে।  

জাতীয় পতাকা প্রত্যেক দেশের অনন্য প্রতীক। এটা তার পরিচয়।  প্রত্যেক দেশের পতাকাই যার যার নিজস্ব নকশায় স্বাতন্ত্র্য। তবুও অনেক দেশের পতাকা কেন একই ধরনের মনে হয়? কিংবা তাদের নকশা ও রংয়ে মিল থাকে কেন? 

আরো খেয়াল করলে দেখবেন, অনেক অঞ্চলেই প্রতিবেশী দেশগুলোর পতাকায় অনেক মিল রয়েছে। যেমন- স্ক্যান্ডিনেভিয়ান দেশগুলোর পতাকার ডিজাইন একই ধাঁচের। এখানকার পতাকাগুলো মূলত ডেনমার্কের পতাকার ডিজাইন দ্বারা প্রভাবিত। এই পতাকাটি আবার ক্রুসেডের ঘটনায় প্রভাবিত। স্ক্যান্ডেনেভিয়ার প্রতিটি পতাকায় রয়েছে 'নরডিক ক্রস' চিহ্ন।

 

আবার ইউরোপের অধিকাংশ দেশের পতাকায় তিন রংয়া নকশা চোখে পড়বে। এর পেছনে কারণ হিসেবে অবস্থান নিয়েছে ফ্রান্সের পতাকা। পাশাপাশি নীল, সাদা আর লাল রংয়ের লম্বালম্বি অবস্থান অন্যান্য পতাকাকে প্রভাবিত করেছে। এই নকশাটি ফ্রেঞ্চ বিপ্লবের সময় করা হয়েছিল।  

আমেরিকার পতাকায় চোখ রাখলে এর রংয়ের সঙ্গে ব্রিটেনের 'ইউনিয়ন জ্যাক' এর পতাকার অনেক মিল পাবেন।  

আবার হন্ডুরাস, গুয়াতেমালা, এল সালভাদর এবং নিকারাগুয়ার পতাকাগুলোও একই রকমের। এরা সবাই রিপাবলিক অব সেন্ট্রাল আমেরিকার অংশ। একই নিয়ম পালিত হয়েছে 'গ্র্যান কলম্বিয়া' অংশে। এদের রংয়ের মিশেলগুলো একই ধরনের।  

উরুগুয়ে এবং আর্জেন্টিনা তাদের পতাকায় 'সান অব মে' ভাগাভাগি করেছে। আফ্রিকার দেশগুলোতে চোখ দিন। বেশিরভাগ পতাকায় লাল, সবুজ আর সোনালী রং চোখে পড়বে। এগুলো আসলে প্যান-আমেরিকান রং। পরে অবশ্য কালো রং যোগ হয়েছে আফ্রিকার মানুষের কালো বর্ণ তুলে ধরার জন্যে।  

আরব দেশগুলোর পতাকায় মিল পাবেন। তাদের পতাকায় লাল, সবুজ, সাদা এবং কালো রংগুলো সাধারণভাবেই চোখে লাগবে।  

মূলত এসব কারণেই কোনো অঞ্চলের প্রতিবেশী দেশগুলোর পতাকার চেহারায় মিল থাকে।  
সূত্র : দুবাই পোস্ট 


মন্তব্য