kalerkantho


তিন তালাক : জেলফেরত স্বামীরা এখন বউদের আরো বেশি পেটাবে!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ জানুয়ারি, ২০১৮ ১৫:৩৩



তিন তালাক : জেলফেরত স্বামীরা এখন বউদের আরো বেশি পেটাবে!

টিভি শোতে আনসার রাজার ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া, সামনে তিন নারী ও অনুষ্ঠান উপস্থাপক ছবি- ভিডিও থেকে স্ক্রিন শট

তিল তালাক নিয়ে মামলা করে স্বামীকে জেলে পাঠানো যায়। কিন্তু সেই স্বামী জেল থেকে ছাড়া পেয়ে এসে তো ফের আরো জুলুম করবে! বিতর্কিত তিন তালাক নিয়ে ভারতে ফুঁসে ওঠা মুসলিম নারীদের এমনই নসিহত করেছেন এক মৌলভী। 

তিন তালাক নিষিদ্ধ করে ভারতীয় লোকসভায় আইন পাস হয় ডিসেম্বরের শেষদিকে। কট্টরপন্থী কিছু মুসলিম সংগঠন এর বিরোধিতা করলেও আপামর মুসলিম নারী এবং অনেক সংগঠন পক্ষে ছিল। এমন পটভূমিতে আজ তক নামের হিন্দি টিভি চ্যানেল এক বিতর্কের আয়োজন করে। 

আরো পড়ুন : তিন তালাক বিল তুলে নিতে মোদির দ্বারস্থ হচ্ছে মুসলিম বোর্ড

এতে উপস্থিত ছিলেন তিন তালাকের শিকার দুই নারী ও তাদের পক্ষে আন্দোলন চালানো নারী নেত্রী ফারাহ। অপর পক্ষে ছিলেন তিন তালাকের পক্ষে সোচ্চার খাজা গরিবে নেওয়াজ ফাউন্ডেশনের সভাপতি মাওলানা আনসার রাজা। 

ওই অনুষ্ঠানের ভিডিও ক্লিপে দেখা যায় সঞ্চালক আনসারকে জিজ্ঞেস করছেন, আপনারা তিন তালাক বিলের বিরোধিতা কেন করছেন?

জবাবে আনসারি তিন তালাকের শিকার দুই নারীকে ইঙ্গিত করে বলেন, এর ফায়দা কী তা এরাই বলুন।

আরো পড়ুন : তিন তালাক নিষিদ্ধ : কী বলছেন কলকাতার মুসলমানরা?

তখন ওই নারীদের পক্ষে জবাব দেওয়া শুরু করেন ফারাহ। কিন্তু এতে ক্ষেপে যান আনসার। তিনি বলেন, আপনি চুপ করুন! আমি যাদের প্রশ্ন করেছি তাদেরই বলতে দিন। 

আনসার এ সময় বলেন, বিলটি পাসের ফলে নারীদের ওপর জুলুম আরো বেড়ে যাবে। কারণ, তিন বছরের শাস্তি ভোগ করে স্বামী যখন জেল থেকে ছাড়া পেয়ে বাড়ি ফিরবে তখন স্ত্রীর ওপর অত্যাচার বাড়িয়ে দেবে।

আরো পড়ুন : তিন তালাক প্রথা ছয় মাসের জন্য রদ করল ভারতীয় সুপ্রিম কোর্ট

গত ডিসেম্বরের শেষ দিকে একসঙ্গে তিন তালাক দেওয়াকে শাস্তিযোগ্য অপরাধ হিসেবে গণ্য করে বিল পাস হয় ভারতীয় আইনসভায়। এর আগে আগস্টে ‘তিন তালাক’ নিষিদ্ধ করে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট।
সূত্র : জনসত্তা.কম, বিবিসি, কালের কণ্ঠ   


মন্তব্য