kalerkantho


সমুদ্রের পানির নিচে বিশ্বের সবচেয়ে বড় গুহার সন্ধান

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ জানুয়ারি, ২০১৮ ২২:৫৩



সমুদ্রের পানির নিচে বিশ্বের সবচেয়ে বড় গুহার সন্ধান

মায়া সভ্যতা সবসময় রহস্যে ঢাকা। এখনও এই সভ্যতার রহস্য থেকে পর্দা ওঠেনি। মাঝে মাঝে এক একটা করে মোড়ক খোলে। সম্প্রতি এমন আরো একটি পর্দা উন্মোচন হল। বিশ্বের সবচেয়ে বড় ডুবন্ত গুহার সন্ধান পাওয়া গিয়েছে মেক্সিকোয়। মায়া সভ্যতার ইতিহাসে এটি এক নতুন দিশা দেখিয়েছে।

মেক্সিকোর পূর্বে একজন ডুবুরি এই গুহাটি আবিষ্কার করেছেন। পৃথিবীতে এখনও এটিই সমুদ্রের পানির নিচে সবচেয়ে বড় গুহা। ইউকাতান পেনিনসুলার তলদেশে যা আছে, তা খতিয়ে দেখা ও সংরক্ষণ নিয়ে একটি প্রজেক্ট হচ্ছে। নাম গ্রান অ্যাকিউফেরো মায়া (GAM)। এই প্রজেক্টের কাজ করার সময়ই এই গুহা আবিষ্কৃত হয়। বলা হয়েছে, এই গুহার দৈর্ঘ্য ৩৪৭ কিলোমিটার।

তুলুম বিচ রিসর্টের কাছে স্যাক অ্যাক্টন নামে একটি গুহার সন্ধান পাওয়া যায়। তার দৈর্ঘ্য ছিল ২৬৩ কিলোমিটার। এমন আরো একটি গুহা দস ওজোসের দৈর্ঘ্য ৮৩ কিলোমিটার। জানিয়েছে GAM। ফলে স্যাক অ্যাক্টন ছাপিয়ে গিয়েছে দস ওজোসকে।

GAM ডিরেক্টর ও আন্ডারওয়াটার আর্কিওলজিস্ট গুয়েলিরমো দে আনদা জানিয়েছেন, স্পেন দক্ষিণ আমেরিকার এই জায়গা দখলের আগে জায়গাটি মায়া সভ্যতার অন্তর্গত ছিল। এই গুহার সন্ধান পাওয়ার পর মায়া সংস্কৃতি ও সভ্যতা নিয়ে একটা নতুন দিক খুলে গেল। তাদের ধর্মানুষ্ঠান, তীর্থস্থান এবং এই জাতীয় তথ্য আরও বর্ধিত হবে।


মন্তব্য