kalerkantho


'উন্নত দেশ ও জাতি গঠনে কারিগরি শিক্ষা ও জ্ঞানের কোনো বিকল্প নেই'

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১২ অক্টোবর, ২০১৭ ২১:৫৬



'উন্নত দেশ ও জাতি গঠনে কারিগরি শিক্ষা ও জ্ঞানের কোনো বিকল্প নেই'

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, উন্নত দেশ ও জাতি গঠনে কারিগরি শিক্ষা ও জ্ঞানের কোনো বিকল্প নেই। কারিগরি ও প্রযুক্তি জ্ঞান কাজে লাগিয়ে যাতে কেউ জঙ্গি তৎপরতা না চালাতে পারে সেদিকে সবাইকে সজাগ ও সতর্ক থাকতে হবে।

আজ বিকেলে কাকরাইল ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশ (আইডিইবি)’র ৪০তম সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

আইডিইবি’র সভাপতি এ কে এম এ হামিদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জাতীয় সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি ও আইডিবি’র সাধারণ সম্পাদক মোঃ শামসুর রহমান।  

আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল আরো বলেন, বিশ্বের কাছে আজ মানবতার নেত্রী হিসেবে শেখ হাসিনা একটি সুপরিচিত নাম। তিনি ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশেক উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করতে কারিগরি শিক্ষার প্রতি বিশেষ গুরুত্ব দিয়েছেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মিয়ানমারের নিপীড়িত-নির্যাতিত মানুষকে বাংলাদেশে আশ্রয় দিয়েছেন। বিশ্ববাসী আজ বাংলাদেশের পক্ষে দাঁড়িয়েছে। আমরা আশা করি, শিগগিরই মিয়ানমার তাদের নাগরিকদের ফিরিয়ে নিয়ে যাবে। গত ২৪ আগস্ট থেকে এ পর্যন্ত প্রায় ৬ লাখ মিয়ানমারের নাগরিক বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাদের সব দায়-দায়িত্ব নিয়ে বিশ্ব দরবারে আজ মানবতার নেত্রী হয়েছেন।

হুইপ ইকবালুর রহিম বলেন, বর্তমান সরকার কারিগরী শিক্ষাকে প্রাধান্য দিয়ে দক্ষ জনশক্তি গড়ে তোলার বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।

আইডিবি’র সাধারণ সম্পাদক মোঃ শামসুর রহমান বলেন, ২০৪০ সালের মধ্যে শতকরা ৫০ ভাগ কারিগরি জনশক্তি সৃষ্টির ঘোষণাকে কার্যকর করতে হলে আলাদাভাবে একটি কারিগরি মন্ত্রণালয় গঠন জরুরি।

এ কে এম এ হামিদ বলেন, ডিপ্লোমা প্রকৌশলীদের যথাযথ মর্যাদা দিলে সরকারের এসডিজি বাস্তবায়ন সফল হবে।

আজ সকালে ডিপ্লোমা প্রকৌশলীদের ৪০তম তিন দিনব্যাপী ‘জাতীয় উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির জন্য টিভিইটি” প্রতিপাদ্যেকে সামনে রেখে এই জাতীয় সম্মেলন শুরু হয়। ১২টি কর্মঅধিবেশনে বিভক্ত এ সম্মেলনে জাতীয় প্রেক্ষাপটে ২টি সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে। আগামীকাল সেমিনারে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এসডিজি বিষয়ক মুখ্য সমন্বয়ক মোঃ আবুল কালাম আজাদ প্রধান অতিথি এবং গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ শহীদ উল্ল্যা খন্দকার বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন।


মন্তব্য