kalerkantho


সুন্দরবনে ক্যামেরা ট্রাপিং পদ্ধতিতে বাঘ গণনা শুরু

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ১১:১২



সুন্দরবনে ক্যামেরা ট্রাপিং পদ্ধতিতে বাঘ গণনা শুরু

সুন্দরবনে ক্যামেরা ট্রাপিং পদ্ধতিতে বাঘ গণনা শুরু হচ্ছে। আজ মঙ্গলবার সুন্দরবনের খুলনা ও শরণখোলা রেঞ্জের দুটি বন্যপ্রাণি অভয়ারণ্যের ৪৭৮ বর্গকিলোমিটার এলাকায় করা হবে এই মনিটরিং। বন বিভাগ জানিয়েছে, ২৩৯টি পয়েন্টের গাছ বা খুঁটির সঙ্গে ৬৭০টি ক্যামেরা বসিয়ে বাঘ মনিটরিং করা হবে।

পুরো কার্যক্রম পরিচালনা করছেন বন বিভাগ ও ওয়াইল্ড টিমের ৬০ সদস্য। ৩ বছর আগেও হয়েছিলো ক্যামেরা ফাঁদ পদ্ধতিতে বাঘ গণনা। তখন সুন্দরবনে পাওয়া যায় ১০৬টি বাঘ।

প্রথম দফায় ২০১৩ সালে সুন্দরবনের ২৬ শতাংশ এলাকায় ক্যামেরা ট্রাপিং পদ্ধতিতে বাঘ শুমারি হয়েছিল। এরপর দ্বিতীয় দফায় ২০১৬ সালের ১ ডিসেম্বর থেকে ২০১৭ সালের ১৫ মার্চ সুন্দরবনের সাতক্ষীরা রেঞ্জে ক্যামেরা ট্রাপিং’র মাধ্যমে তথ্য সংগ্রহের কাজ হয়।

এ বিষয়ে বন্য প্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মো. মদিনুল আহসান আংবাদিকদের জানান, বন বিভাগ ও ওয়াইল্ড টিমের প্রতিনিধিরা সুন্দরবনে রওনা হয়েছেন। মঙ্গলবার সুন্দরবনের হাড়বাড়িয়া এলাকায় ক্যামেরা ট্রাপিংয়ের প্রাকটিস করা হবে। এরপর বুধবার সকাল থেকে নীলকমল এলাকায় ক্যামেরা ট্রাপিং পদ্ধতিতে বাঘ মনিটরিংয়ের কাজ শুরু হবে।

উল্লেখ্য, বন বিভাগের তথ্যানুযায়ী সুন্দরবনে ১৯৮২ সালে বাঘের সংখ্যা ছিল ৪৫৩টি, ২০০৪ সালে ৪৪০টি।


মন্তব্য