kalerkantho


কুয়ালালামপুরে আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবুর স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৬ নভেম্বর, ২০১৭ ০৪:৫৮



কুয়ালালামপুরে আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবুর স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত

ছবি : কালের কণ্ঠ

মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুরে অনুষ্ঠিত হয়েছে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাবেক প্রেসিডিয়াম সদস্য মরহুম আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবু স্মরণ সভা। রবিবার সন্ধ্যায় কুয়ালালামপুর বুকিত বিনতাং রসনা বিলাস রেস্টুরেন্টের হলরুমে মরহুম আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবু স্মৃতি সংসদ মালয়েশিয়া শাখার উদ্যোগে এ স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ও চট্টগ্রামের আনোয়ারা-কর্ণফুলী আসন থেকে চারবার নির্বাচিত সাবেক এই সংসদ সদস্যের পঞ্চম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে সংগঠনের সভাপতি সৈয়দ মোহাম্মদ মিনহাজুর রহমানের সভাপতিত্বে সভায় আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাংবাদিক রফিক আহমদ খান, ইউনিভার্সিটি মালায়ার পিএইচডি গবেষক মিনহাজ উদ্দিন মিরান, মৌলানা ওসমান গণি ও মালয়েশিয়া ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ন আহবায়ক রাসেল সিকদার।

সাধারণ সম্পাদক জিসানুল ইসলাম আকাশের পরিচালনায় সভায় অন্যানদের আরো বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশি স্টুডেন্ট অর্গানাইজেশন মালয়েশিয়া (বিএসওএম) এর সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম, ছাত্রলীগ নেতা শাহীন পাটোয়ারী, আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবু স্মৃতি সংসদ মালয়েশিয়া শাখার সহ সভাপতি সালাহ উদ্দিন রাসেল, সাংগঠনিক সম্পাদক মিজানুর রহমান চৌধুরী, যুগ্ন সম্পাদক এম.এইচ জুয়েল, প্রচার সম্পাদক নজরুল ইসলাম, দপ্তর সম্পাদক দিল মোহাম্মদ, অর্থ সম্পাদক মোহাম্মদ নবী হোসেন, সাংস্কৃতিক সম্পাদক এস এম আনোয়ার শুভ, রাজু বিশ্বাস প্রমূখ।

সভায় সাংবাদিক রফিক আহমদ খান বলেন, আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবু তাঁর দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে কখনো জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও আওয়ামী লীগের আদর্শ থেকে বিচ্যুত হন নি। আদর্শ বিচ্যুত হলে তিনি জিয়া ও এরশাদের সামরিক সরকারের মন্ত্রী হতে পারতেন। কিন্তু, তিনি তা করেন নি। তিনি আজীবন মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের রাজনীতির ধারক বাহক ছিলেন। গবেষক মিনহাজ উদ্দিন মিরান বলেন, রাজনীতির পাশাপাশি বাংলাদেশের শিল্প উন্নয়নেও মরহুম আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবু অপরিসীম অবদান রেখেছিলেন।


মন্তব্য