kalerkantho


স্বস্তি দিতে গিয়ে প্রবাসে বাবার কাঁধে ছেলের লাশ!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২ মে, ২০১৮ ১৮:৪১



স্বস্তি দিতে গিয়ে প্রবাসে বাবার কাঁধে ছেলের লাশ!

প্রবাসী শ্রমিক হিসেবে বছরের পর বছর কেটে গেছে খোকন শেখের। শেষ বয়সে এসে ছেলে পারভেজ শেখের কাঁধে হাত রেখে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলতে চেয়েছিলেন। সেজন্য ভিসা করিয়ে বছর দেড়েক আগে ছেলেকে নিয়ে গিয়েছিলেন সৌদি আরবে।

ছেলের বয়স মাত্র ২১ বছর। দেড় বছর ধরে ছেলেকে সঙ্গে নিয়ে প্রবাসে হাড়ভাঙা পরিশ্রম করে যাচ্ছিলেন মুন্সিগঞ্জ জেলার শ্রীনগর থানার বাগড়ার এই বৃদ্ধ।

ছেলেকে নিয়ে থাকতেন জেদ্দাতে। দু'জনের রোজগারে দিব্যি চলে যাচ্ছিলো দিন। কিন্তু সুখ তার কপালে সহ্য হলো না। শেষ বয়সে এসে সন্তানের লাশ কাঁধে নিতে হয়েছে ভিনদেশের মাটিতে। গত রবিবার বেখেয়ালি ট্রেলার চালকের গাড়ির চাকার তলে ফুরিয়ে গেছে পারভেজ শেখের দম!

সেদিন রাত ৮টার দিকে সাইকেলে রাস্তা পার হচ্ছিল পারভেজ। বেপরোয়া গাড়ি এসে পারভেজকে উড়িয়ে দিয়ে পিষ্ট করেছে! মুখ দেখেও চেনার উপায় নাই।

খুনি চালককে পরবর্তীতে ধরা গেছে। এদিকে মঙ্গলবার দাফনও হয়ে গেছে পারভেজ শেখের। পরিবারে এখন একটাই চাওয়া, খুনি চালককে যেন উচিত বিচারের মুখোমুখি করা হয়। ছেলেহারা খোকন শেখের পাশে রয়েছে সৌদি প্রবাসী বাংলাদেশিরা। তারা শোকার্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনাও জানিয়েছেন।


মন্তব্য