kalerkantho


শান্তর অপরাজিত ১৫০; আবাহনীর দুর্দান্ত জয়

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৮ মার্চ, ২০১৮ ১৭:৫৭



শান্তর অপরাজিত ১৫০; আবাহনীর দুর্দান্ত জয়

ফাইল ছবি

ওপেনার নাজমুল হোসেন শান্তর অপরাজিত ১৫০ ভর করে ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেটের লিগ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে শাইন পুকুর ক্রিকেট ক্লাবকে ৫৬ রানে হারিয়েছে আবাহনী লিমিটেড। ১০৪ রানের ইনিংস খেলেও শাইনপুকুরকে হার থেকে রক্ষা করতে পারেননি ফারদিন হাসান অনি। 

লিগ পর্বে সবগুলো খেলা শেষে ১৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে রয়েছে আবাহনী। সমানসংখ্যক ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের ষষ্ঠ স্থানে শাইনপুকুর। তবে অন্য দলগুলোর ম্যাচ বাকি থাকায় সুপার সিক্সের পথ কঠিন হয়ে গেছে শাইনপুকুরের।

ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলী স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয় শাইনপুকুর। দলীয় ৩০ রানে প্রথম উইকেট হারায় আবাহনী। ১৮ রান করে ফিরেন ওপেনার এনামুল হক। এরপর দ্বিতীয় উইকেটে জুটি বাঁধেন সাইফ হাসান ও নাজমুল হোসেন শান্ত। শাইনপুকুরের বোলারদের উপর ব্যাট হাতে ছড়ি ঘুড়িয়েছেন তারা। উইকেটে চারপাশে চার-ছক্কার ফুলঝুড়ি ছড়িয়েছেন সাইফ ও শান্ত। এই জুটির ১৮৫ রানের জুটিতে বড় সংগ্রহের পথ পায় আবাহনী।

৭ চার ও ৪ ছক্কায় ১১৪ বল মোকাবেলায় ৯৪ রান করে থামেন সাইফ। তবে সেঞ্চুরি তুলে নেন শান্ত। শেষ পর্যন্ত লিস্ট 'এ' ক্রিকেটে ক্যারিয়ারের সেরা ইনিংস খেলেন শান্ত। ১২০ বলে অপরাজিত ১৫০ রান করেন তিনি। তার ইনিংসে ৯টি চার ও ছক্কার মার ছিলো। এছাড়া অধিনায়ক নাসির হোসেন ৪৫ রান করেন। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৪ উইকেটে ৩৩৫ রানের বড় সংগ্রহ পায় আবাহনী।

জবাবে বড় লক্ষ্যে তাড়া করতে নেমে শুরুটা চমৎকার করে শাইনপুকুর। উদ্বোধনী জুটিতেই দলকে ১২৫ রান এনে দেন দুই ওপেনার ফারদিন হাসান অনি ও সাদমান ইসলাম। এজন্য তারা মোকাবেলা করেন ১৪৪ বল। ৫৬ রানে থাকা সাদমানকে শিকার করে আবাহনীকে প্রথম ব্রেক-থ্রু এনে অধিনায়ক নাসির। 

তবে অন্যপ্রান্তে সেঞ্চুরি তুলে নেন অনি। ৯টি চার ও ২টি ছক্কায় ১১৮ বলে ১০৪ রান করে আহত অবসর হন তিনি। এরপর তিন নম্বরে নেমে তৌহিদ হৃদয় ৮৩ রান করলেও দলের হার এড়াতে পারেননি। নির্ধারিত ৫০ ওভাওে শেষ পর্যন্ত ৩ উইকেটে ২৭৯ রান করতে পারে শাইনপুকুর। আবাহনীর মাশরাফি বিন মর্তুজা ৩৫ রানে ২ উইকেট নেন। ম্যাচ সেরা হয়েছেন শান্ত।



মন্তব্য