kalerkantho


পাকিস্তানি ক্লাবে খেলতে গিয়ে বিপাকে আফগান উইকেটকিপার!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ এপ্রিল, ২০১৮ ২১:৫২



পাকিস্তানি ক্লাবে খেলতে গিয়ে বিপাকে আফগান উইকেটকিপার!

তার বেড়ে ওঠা পাকিস্তানের শরণার্থী শিবিরে। বিয়েও করেছেন পাকিস্তানেই। এবার সেই পাকিস্তানের একটি ক্লাবে খেলতে গিয়ে বিপাকে পড়লেন আফগান উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ শাহজাদ। অনুমতি ছাড়া পাকিস্তানের একটি ক্লাবের পক্ষে খেলতে নেমে ধরা পড়ায় তাকে জরিমানা করা হয়েছে। আফগানিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (এসিবি) এক কর্মকর্তা আজ এ কথা জানিয়েছেন।

আফগানিস্তান সীমান্তের কাছাকাছি পাকিস্তানের শহর পেশোয়ারে একটি স্থানীয় টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণের দায়ে শাহজাদকে তিন লাখ আফগানি (প্রায় ৪৪০০ ইউএস ডলার) জরিমানা করা হয়েছে এবং তাকে দেশে ফিরতে বলা হয়েছে। এসিবির গণমাধ্যম ও মার্কেটিং প্রধান লুতফুল্লাহ স্তানিকজাই বলেন, গত মাসে অনুষ্ঠিত ২০১৯ বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব খেলার পর জিম্বাবুয়ে থেকে আফগানিস্তান ফেরার পর পাকিস্তান যান ৩০ বছর বয়সী শাহজাদ।

নিয়মানুযায়ী এসিবির অননুমোদিত কোন টুর্নামেন্ট খেলতে চাইলে খেলোয়াড়দের 'অনাপত্তি প্রত্র' দরকার। শাহজাদ এই নিয়ম মানেননি। এই তারকা ক্রিকেটারের ক্যারিয়ারে একের পর এক বিতর্কে ভরা। গত মাসেই তিনি বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে আউট হওয়ার পর ব্যাট ছুঁড়ে মারার কারণে দুই ম্যাচ নিষিদ্ধ হয়েছিলেন। এক বছরের নিষিদ্ধাদেশ কাটিয়ে মাঠে ফেরার এক মাসের মধ্যেই এ কাণ্ড ঘটান শাহজাদ।

স্তানিকজাই জানান, 'আগামী জুনে বাংলাদেশের বিপক্ষে একটি ওয়ানডে সিরিজ ও ভারতের বিপক্ষে একমাত্র টেস্ট খেলার আগে অনুশীলন ক্যাম্পে যোগ দিতে ভারত যাবেন শাহজাদ। এ ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটালে তাকে ভবিষ্যতে ক্রিকেটে নিষিদ্ধ করা হতে পারে।'

বেশ কয়েকবছর ধরেই জঙ্গি হানার প্রেক্ষিতে পাকিস্তান-আফগানিস্তানের ক্রিকেটীয় সম্পর্ক ভালো নয়। পাকিস্তানের মাটিতে কোনো ম্যাচ না খেলার ঘোষণাও দিয়েছে আফগানিস্তান। এসিবি ইতিমধ্যেই শাহজাদকে আফগানিস্তান ফেরার নির্দেশ দিয়েছে। স্তানিকজাই বলেন, 'আমাদের ঘরোয়া ক্রিকেটের অবকাঠামো অত্যন্ত শক্তিশালী। সুতরাং আমাদের খেলোয়াড়দের আফগানিস্তানের বাইরে গিয়ে খেলার প্রয়োজন নেই। এখানে এখন অনেক ক্রিকেট খেলা হচ্ছে।'



মন্তব্য