kalerkantho


মার্কিন নির্বাচনে হস্তক্ষেপ

রাশিয়ার ১৩ নাগরিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ১২:৪২



রাশিয়ার ১৩ নাগরিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ

রাশিয়ার ১৩ নাগরিকের বিরুদ্ধে ২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে হস্তক্ষেপের জন্য অভিযোগ গঠন করা হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থার (এফবিআই) তদন্তের অগ্রগতির ধারাবাহিকতায় তাদের বিরুদ্ধে এ অভিযোগ গঠন করা হয়েছে। আজ শনিবার সকালে বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রুশ হস্তক্ষেপের অভিযোগের তদন্তে এ ঘটনাকে বড় ধরনের অগ্রগতি হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল রড রসেনস্টেইন এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের কোনো নাগরিকের জ্ঞাতসারে এই অবৈধ কর্মকাণ্ডে জড়ানোর কোনো প্রমাণ এখনও তারা পাননি।


আরো পড়ুন: 'সু চিকে বিচারের মুখোমুখি করা যেতে পারে'


এতে বলা হয়েছে, যে ১৩ জনের বিরুদ্ধে এফবিআই অভিযোগ এনেছে তাদের মধ্যে তিনজনের বিরুদ্ধে অনলাইনে তথ্য জালিয়াতির ষড়যন্ত্র এবং পাঁচজনের বিরুদ্ধে অন্যের পরিচয়ে ছদ্মবেশে প্রতারণার অভিযোগ আনা হয়েছে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রুশ হস্তক্ষেপের অভিযোগ তদন্তের দায়িত্বে থাকা এফবিআইয়ের স্পেশাল কাউন্সেল রবার্ট মিউয়েলারের তদন্তেই রাশিয়ার এই ১৩ নাগরিকের নাম উঠে আসে বলেও বিবিসির প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।


আরো পড়ুন:


প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, মিউয়েলারের যে অভিযোগপত্র তৈরি করেছে তাতে রাশিয়ার তিনটি প্রতিষ্ঠানের নামও এসেছে, যার মধ্যে রয়েছে সেন্ট পিটার্সবার্গভিত্তিক ইন্টারনেট রিসার্চ এজেন্সি। ৩৭ পৃষ্ঠার অভিযোগপত্রে প্রতিষ্ঠানটি সম্পর্কে বলা হয়েছে, ২০১৬ সালের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনসহ যুক্তরাষ্ট্রের রাজনৈতিক ব্যবস্থায় মতানৈক্যের বীজ বপনের কৌশলগত লক্ষ্য ছিল প্রতিষ্ঠানটির।

অভিযোগপত্রে রাশিয়ার যেসব কোম্পানির নাম উঠে এসেছে, তার মধ্যে রয়েছে সেন্ট পিটার্সবার্গ ভিত্তিক ইন্টারনেট রিসার্চ ইনস্টিটিউট। ৩৭ পৃষ্ঠার অভিযোগে বলা হয়েছে, এই কোম্পানি প্রেসিডেন্ট নির্বাচনসহ যুক্তরাষ্ট্রের রাজনৈতিক ব্যবস্থায় কৌলগত লক্ষ্য নিয়ে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিতে কাজ করেছিল। ২০১৬ সালের মার্কিন নির্বাচনের পর থেকেই এতে রুশ হস্তক্ষেপের অভিযোগ ওঠে। তবে শুরু থেকেই এ অভিযোগ নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। অন্যদিকে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনও বরাবরই মার্কিন নির্বাচনে হস্তক্ষেপের অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন।

 


মন্তব্য