kalerkantho


হায়দরাবাদের মক্কা মসজিদে বিস্ফোরণ

সব অভিযুক্ত খালাস

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৭ এপ্রিল, ২০১৮ ০০:০০



ভারতের হায়দরাবাদের মক্কা মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনায় উগ্র হিন্দুত্ববাদী সংগঠন আরএসএসের সাবেক সদস্য স্বামী অসীমানন্দসহ অভিযুক্তদের সবাইকে খালাস দিয়েছেন আদালত। গতকাল সোমবার হায়দরাবাদের জাতীয় তদন্ত সংস্থা (এনআইএ) বিশেষ আদালত এ রায় দেন। আদালত বলেছেন, অভিযুক্তরা যে বিস্ফোরণে জড়িত ছিলেন, তা প্রমাণ করতে ব্যর্থ হয়েছে এনআইএ।

২০০৭ সালের ১৮ মে শুক্রবার জুমার নামাজ চলাকালে মক্কা মসজিদে ওই বিস্ফোরণে ৯ জন নিহত ও ৫৮ জন আহত হয়েছিল। ওই বোমা হামলায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের (আরএসএস) সাবেক সদস্য স্বামী অসীমানন্দ লিখিত স্বীকারোক্তি দিয়েছিলেন।

পুলিশ ঘটনার তদন্তের পর এর তদন্তের ভার তুলে দেওয়া হয় সিবিআইয়েল হাতে। ২০১১ সালে সিবিআইয়েল থেকে তদন্ত হাতে নেয় এনআইএ। জানা যায়, বিস্ফোরণে পাইপ বোমা ব্যবহার করা হয়েছিল এবং উগ্র হিন্দুত্ববাদীরাই হামলার পেছনে ছিল বলে প্রাথমিক তদন্তে জানা যায়। তদন্তে উঠে আসে অসীমানন্দ ওরফে নবকুমার সরকারসহ মোট ১০ জনের নাম।

তবে ১০ অভিযুক্তের মধ্যে ধরা পড়েছিলেন মাত্র পাঁচজন। তাঁরা হচ্ছেন দেবেন্দ্র গুপ্ত, লোকেশ শর্মা, স্বামী অসীমানন্দ ওরফে নবকুমার সরকার, ভরত ভাই এবং রাজেন্দ্র চৌধুরী। অন্যতম অভিযুক্ত সুনীল যোশী ইতিমধ্যে খুন হয়ে যান। নিখোঁজ ছিলেন আরো দুজন। এনআইএ বাকি সাতজনের মধ্যে পাঁচজনের বিরুদ্ধে চার্জশিট জমা দেয় এনআইএ। বিচারে মোট ২২৬ জন প্রত্যক্ষদর্শী সাক্ষ্য দেন এবং প্রায় ৪১১টি নথি প্রদর্শন করা হয়।  দীর্ঘ ১১ বছর পর পাঁচজনই প্রমাণের অভাবে ছাড়া পেয়ে যাওয়ায় নিহতদের পরিবার-পরিজনরা প্রশ্ন তুলেছে, আটকরা যদি দোষী না হয়, তবে বিস্ফোরণ ঘটাল কে?

সূত্র : পিটিআই।



মন্তব্য