kalerkantho


সংস্কার শেষ করেছে ৫৪ কারখানা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৯ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



সংস্কার শেষ করেছে ৫৪ কারখানা

বিদায়ী বছরের ডিসেম্বর মাসে ৫৪টি অ্যালায়েন্স অধিভুক্ত কারখানা তাদের সংশোধনী কর্ম পরিকল্পনায় (ক্যাপ) উল্লিখিত সব মেরামতকাজ সম্পন্ন করেছে। এর মাধ্যমে যার ফলে সংস্কারকাজ সম্পন্নকারী কারখানার মোট সংখ্যা দাঁড়াল ৩০১টি। অ্যালায়েন্সের ঢাকা কার্যালয় এ তথ্য জানিয়েছে।

দেশের পোশাক খাতে কর্মক্ষেত্র ও শ্রমিকসহ সার্বিক নিরাপত্তা পরিস্থিতি মূল্যায়নে নিয়োজিত আছে উত্তর আমেরিকাভিত্তিক ক্রেতা ও শ্রমিক অধিকার সংস্থার জোট অ্যালায়েন্স ফর বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স সেফটি। এই জোটের আওতায় আছে ৬৫৯টি পোশাক কারখানা। এর মধ্যে ৩০১টি কারখানার ত্রুটি সংশোধন কর্মপরিকল্পনা অনুযায়ী মেরামত সম্পন্ন করেছে।

অ্যালায়েন্স এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর সাবেক রাষ্ট্রদূত জিম মরিয়ার্টি বলেছেন, ‘অ্যালায়েন্সের কঠোর নিরাপত্তা মানদণ্ড অর্জনে এসব কারখানা যে কঠোর পরিশ্রম করেছে সে জন্য প্রত্যেকটি কারখানা প্রশংসার দাবিদার। তাদের অগ্রগতি ২০১৮ সালের জন্য একটি বিশেষ পরিবেশ তৈরি করেছে এবং বাংলাদেশ পোশাকশিল্পে নিরাপত্তা সংস্কৃতি তৈরির যে মিশন আমাদের রয়েছে তাকে আরো শক্তিশালী করেছে।’

অ্যালায়েন্সের দাবি, জোটের আওতাধীন সব কারখানায় ৮৭ শতাংশ প্রয়োজনীয় সংস্কারকাজ সম্পন্ন হয়েছে। ডিসেম্বর মাসে সংস্কারকাজে সন্তোষজনক অগ্রগতি প্রদর্শনে ব্যর্থ হওয়ার কারণে কোনো কারখানার সঙ্গে ব্যবসায়িক সম্পর্ক ছিন্ন করা হয়নি। শ্রমিকদের জন্য একটি নিরাপদ কর্মপরিবেশ তৈরিতে অ্যালায়েন্স কারখানাগুলোর একটি সমন্বিত প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। এখন পর্যন্ত স্থগিত কারখানার সংখ্যা হলো ১৬৪।


মন্তব্য