kalerkantho


আমের দর পড়ে গেছে ভারতেও

বাণিজ্য ডেস্ক   

১৩ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



পর্যাপ্ত উৎপাদন হলেও সে হারে রপ্তানি না হওয়ায় ভারতেও কমে গেছে আমের দাম। কৃষকরা অভিযোগ করছে তারা উৎপাদন খরচের এক-তৃতীয়াংশও ওঠাতে পারছে না। তাদের মতে, আমের দাম কমার বড় কারণ হঠাৎ করে সরবরাহ বেড়ে যাওয়া এবং প্রতিবেশী দেশ ও রাজ্যগুলো থেকে সেভাবে চাহিদা তৈরি না হওয়া।

ভারতের পশ্চিমবঙ্গ থেকে ফেডারেশন অব এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বেঙ্গলের যুগ্ম সম্পাদক সামির ঘোষ বলেন, এবার কৃষকরা নিপাহ ভাইরাস আতঙ্কের কারণেই দ্রুত আম গাছ থেকে নিয়ে ফেলেছেন। ফলে একসঙ্গে বিপুল আম বাজারে এসেছে। অথচ নিপাহ ভাইরাসের একটি ঘটনাও ধরা পড়েনি। এই ভয়ে অন্য রাজ্যগুলো থেকে আম ক্রেতা সেভাবে আসেনি। এসব কারণে ব্যাপকভাবে আমের দাম কমে গেছে। এমনকি অনেক কৃষককে তাদের আম কেজিপ্রতি দুই রুপিতেও বিক্রি করতে হয়েছে। তিনি জানান, শুধু মালদা জেলাতেই বছরে ছয় থেকে সাত লাখ মেট্রিক টন আম উৎপাদন হয়।

অ্যাসোসিয়েশন অব ম্যাঙ্গো মার্চেন্টস ইন মালদার সেক্রেটারি উজ্জল চৌধুরী বলেন, ‘আমাদের আমের অন্যতম রপ্তানিবাজার বাংলাদেশ। কিন্তু গত কয়েক বছর যাবৎ বাংলাদেশে আম রপ্তানি একেবারে শূন্যে নেমে এসেছে। ফলে আমরা রপ্তানির জন্য বিহার, ঝাড়খণ্ড, উত্তর প্রদেশ, আসাম এবং ত্রিপুরার ওপর নির্ভর করছি। কিন্তু এ মুহূর্তে অবস্থার পরিবর্তন হয়েছে। খুব বড় কোনো ক্রেতা পাওয়া যাচ্ছে না। এর ফলে ল্যাংড়া, লক্ষ্মণভোগ, হিমসাগর এবং আম্রপালির দাম একেবারে পড়ে গেছে। এক কৃষক বলেন, আম বিক্রি করে আমাদের লোকসান হচ্ছে। টেলিগ্রাফ, টাইমস অব ইন্ডিয়া।



মন্তব্য