kalerkantho

ব্যক্তিত্ব

১৮ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



ব্যক্তিত্ব

রুডইয়ার্ড কিপলিং

ইংরেজ সাহিত্যিক, কবি ও ঔপন্যাসিক রুডইয়ার্ড কিপলিং শিশুদের জন্য অসাধারণ অনেক সাহিত্য রচনা করেছেন। ছোটদের জন্য তাঁর সৃষ্টিকর্মের মধ্যে রয়েছে ‘দ্য জাঙ্গল বুক’, ‘জাস্ট টু স্টোরিজ’ ও ‘পাক অব পুকস হিল’। আরো রয়েছে বড়দের জন্য উপন্যাস ‘কিম’, কবিতা ‘ম্যান্ডালে’, ‘গুঙ্গা ডিন’, ‘ইফ’ প্রভৃতি। ছোটগল্প রচনায় আধুনিক শিল্পনির্দেশনার অন্যতম উদ্ভাবক তিনি।

ব্রিটিশ নাগরিক জন লকউড ও এলিস বিয়ের পর ভারতে চলে এসেছিলেন। মুম্বাইয়ে ১৮৬৫ সালের ৩০ ডিসেম্বর তাঁদের সন্তান কিপলিংয়ের জন্ম। কিপলিংয়ের শৈশব মুম্বাইয়ে কেটেছে। পরে পারিবারিক রেওয়াজ অনুযায়ী ইংল্যান্ডে গিয়ে ব্রিটিশ পাবলিক স্কুলে পড়াশোনা করেন। ১৮৮২ সালে তিনি ভারতে ফিরে আসেন। তাঁর লেখকজীবন শুরু হয় পত্রিকার রিপোর্টার হিসেবে। সাহিত্যেও তিনি সমান পারদর্শী ছিলেন। মাত্র ২৫ বছর বয়সেই তিনি লেখক হিসেবে জনপ্রিয়তা পান। পরে তিনি লন্ডনে চলে যান।

১৯০৭ সালে ‘কিম’ উপন্যাসের জন্য সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার পান কিপলিং। উপন্যাসে দেখা যায়, বালক কিম ও প্রবীণ এক তিব্বতি বৌদ্ধ লামা সারা ভারত ভ্রমণে বের হয়েছেন। কখনো সমতলে, কখনো পর্বতে, কখনো লাহোর, আম্বালা, লখনউ প্রভৃতি শহরে, কখনো গ্র্যান্ড ট্রাংক রোড ধরে চলেছেন তাঁরা। বিচিত্র সব মানুষ সঙ্গী হয় তাঁদের। পাশ্চাত্যের পাঠকের সামনে উপন্যাসটি ভারতীয় উপমহাদেশের সমৃদ্ধ সংস্কৃতি ও সৌন্দর্য তুলে ধরে। কিপলিং ভারতবর্ষকে বিশ্বসাহিত্যে স্থান করে দিয়েছেন। ১৯৩৬ সালের ১৮ জানুয়ারি তিনি মৃত্যুবরণ করেন। ইংল্যান্ডের ওয়েস্টমিনস্টার অ্যাবেতে তাঁকে সমাহিত করা হয়।

[উইকিপিডিয়া অবলম্বনে]


মন্তব্য