kalerkantho


বেনাপোলে চোরাচালানিদের হামলা

আত্মরক্ষায় বিজিবির গুলি আটক ৩

বেনাপোল প্রতিনিধি   

৯ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



বেনাপোলে গতকাল সোমবার ভোরে চোরাচালান পণ্য আটক করতে গেলে সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদস্যদের ওপর হামলা চালায় চোরাচালানিরা। আত্মরক্ষায় চার রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়ে বিজিবি। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে সাড়ে ছয় লাখ টাকার ভারতীয় মদ, শাড়ি, সিগারেট, স্যান্ডেল, জুতাসহ তিন চোরাচালানিকে আটক করা হয়।

আটক ব্যক্তিরা হলো বেনাপোল পোর্ট থানার ভবারবেড় গ্রামের আফতাফ হোসেনের ছেলে গফফার হোসেন (২২), তোরাবের স্ত্রী আলেয়া বেগম (৪০) এবং তার মেয়ে খাদিজা পারভিন (১৯)।

বিজিবি বেনাপোল ক্যাম্পের নায়েক সুবেদার শহিদুল ইসলাম জানান, ভারত থেকে চোরাচালান পণ্য পাচার হয়ে বেনোপোলের ছোট আঁচড়া হয়ে যশোরে যাচ্ছে—এমন সংবাদ পেয়ে বিজিবির একটি টহলদল চোরাচালানিদের অনুসরণ করে। একপর্যায়ে তাদের আটক করতে ধাওয়া করলে তারা বিজিবি সদস্যদের ওপর ইটপাটকেল ছুড়তে থাকে। নিরুপায় হয়ে চার রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয় বিজিবি। গুলির শব্দে চোরাচালানিরা মালামাল ফেলে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। অন্যরা পালাতে পারলেও ধরা পড়ে দুই নারীসহ তিন চোরাচালানি। পরে সেখান থেকে ৭৯৫ কার্টন ইজি গোল্ড সিগারেট, ২২ পিস উন্নত মানের শাড়ি, ৬০ বোতল ফেনসিডিল, ৬৮ জোড়া স্যান্ডেল, ৬২ জোড়া কেডস উদ্ধার করা হয়।

আটক চোরাচালানিদের বেনাপোল পোর্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। উদ্ধার করা পণ্য বেনাপোল শুল্কগুদামে জমা করা হয়েছে বলে সুবেদার শহিদুল ইসলাম জানান। এ ঘটনায় বেনাপোল পোর্ট থানায় একটি মামলা হয়েছে।


মন্তব্য