kalerkantho


রাজীবের হাত বিচ্ছিন্নের ঘটনা

দুই বাসচালকের জামিন নাকচ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৭ এপ্রিল, ২০১৮ ০০:০০



তিতুমীর কলেজের ছাত্র রাজীব হোসেনের হাত বিচ্ছিন্ন হওয়ার ঘটনায় করা মামলায় গ্রেপ্তার দুই বাসচালকের জামিন আবেদন নাকচ করা হয়েছে। গতকাল সোমবার ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট নুর নাহার ইয়াসমিন দুজনের জামিন আবেদন শুনানি শেষে তা নামঞ্জুর করেন।

বিআরটিসি বাসের চালক ওয়াহিদ ও স্বজন পরিবহনের বাসের চালক মো. খোরশেদকে গত ৪ এপ্রিল গ্রেপ্তার করে পুলিশ। আগের দিন ৩ এপ্রিল দুপুরে বিআরটিসির একটি দোতলা বাসের পেছনের ফটকে দাঁড়িয়ে যাচ্ছিলেন মহাখালীর সরকারি তিতুমীর কলেজের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র রাজীব হোসেন। বাসটি সোনারগাঁও হোটেলের বিপরীতে পান্থকুঞ্জ পার্কের সামনে পৌঁছালে হঠাৎ পেছন থেকে স্বজন পরিবহনের বাসটি বিআরটিসি বাসটির গা ঘেঁষে যেতে থাকে। দুই বাসের চাপে দাঁড়িয়ে থাকা রাজীবের হাত শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

ওই ঘটনার পর পথচারীরা রাজীবকে পান্থপথের শমরিতা হাসপাতালে ভর্তি করেন। এরপর তাঁকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হয়। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, রাজীবের ডান হাত কনুইয়ের ওপর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। প্রচুর রক্তক্ষরণ হয় এ সময়।  এখনো রাজীবের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

 


মন্তব্য