kalerkantho


নাজিরপুরে সরকারি গাছে কুড়াল

পিরোজপুর প্রতিনিধি   

৮ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



পিরোজপুরের নাজিরপুরে বনায়নের সরকারি ও একটি ইউনিয়ন পরিষদের গাছ কেটে নিয়েছে প্রভাবশালীরা। জানা গেছে, উপজেলার মাটিভাঙ্গা ইউনিয়নের পশ্চিম বানিয়ারী মালাকার স্কুলসংলগ্ন রাস্তার বনায়নের সরকারি গাছ কেটে নিয়েছে ওই ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি পল্লী চিকিৎসক মো. সালাম খান। এলাকাবাসী জানায়, গত বৃহস্পতি ও শুক্রবার প্রকাশ্য লক্ষাধিক টাকা মূল্যের তিনটি মেহগনি ও একটি রেইনট্রি কড়াই গাছ কেটে নেন তিনি।

উপজেলা বন কর্মকর্তা মো. ইউসুফ আলী হাওলাদার জানান, অভিযুক্ত সালাম খান গাছগুলো আত্মসাতের উদ্দেশ্যে বাগেরহাটের চিতলমারী উপজেলার কালীগঞ্জ বাজারের একটি করাতমিলে নিয়ে রাখেন। গোপন খবরের ভিত্তিতে রবিবার সেখান থেকে সেগুলো উদ্ধার করে স্থানীয়দের জিম্মায় রাখা হয়েছে। ওই সব গাছ নাজিরপুরে এনে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত আওয়ামী লীগ নেতা সালাম খান নিজেকে নির্দোষ দাবি করে বলেন, ‘গাছগুলো স্থানীয় গফফার শিকদারের নেতৃত্বে একটি মসজিদের জন্য কাটা হয়েছে।’

এদিকে ওই ইউনিয়ন পরিষদের ভবনের পেছনে থাকা অনেক পুরনো একটি মেহগনিগাছ গত শনিবার কেটে ফেলা হয়েছে। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ বেলায়েত হোসেন বুলু জানান, গাছটি ওই ইউপির আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম বিলু কেটেছেন। তবে জাহিদুল ইসলাম বিলু এ ব্যাপারে কিছুই জানেন না বলে জানান। স্থানীয় ইউপি সদস্য রেজওয়ান হোসেন বলেন, ‘গাছটি ইউনিয়ন পরিষদের বলে জানি। তবে কাটার ব্যাপারে ইউনিয়ন পরিষদের কোনো রেজ্যুলেশন হয়নি।’


মন্তব্য