kalerkantho


ফেসবুকে পোস্ট

নারায়ণগঞ্জে জামায়াতকর্মী গ্রেপ্তার

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি   

৮ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



ফেসবুকে আপত্তিকর পোস্ট দেওয়ার অভিযোগে নারায়ণগঞ্জের বন্দর থেকে নূর মোহাম্মদ প্রধান নামের এক জামায়াতকর্মীকে গ্রেপ্তার করেছে জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ। রবিবার দুপুরে বন্দর উপজেলার কুশিয়ারা এলাকার নিজ বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

নূর মোহাম্মদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, তাঁর ছেলে তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত ও নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খানকে নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করেছে।

ডিবি পুলিশের পরিদর্শক মো. মাজহারুল ইসলাম জানান, অভিযুক্ত নূর মোহম্মদ প্রধান সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে তার ব্যক্তিগত আইডি থেকে কটূক্তিমূলক মন্তব্য করে বিভিন্ন ধরনের পোস্ট দিয়েছে। পাশাপাশি জায়ামাত-শিবিরপন্থী ফেসবুক আইডির এ ধরনের পোস্ট শেয়ার করেছে। বিষয়টি গোয়েন্দা পুলিশের নজরে এলে তার ফেসবুক আইডি পর্যবেক্ষণ করে প্রমাণ পাওয়া যায়। এ ছাড়া এলাকায় খোঁজ নিয়ে জানা গেছে সে জামায়াতে ইসলামীর একজন উগ্রবাদী কর্মী।

তিনি জানান, মহানগর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রানা প্রধান বন্দর থানায় বাদী হয়ে তথ্য-প্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় মামলা করেছেন।

জামিন পেলেন সাংবাদিক

তথ্য ও প্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারার মামলায় উচ্চ আদালত থেকে জামিন পেয়েছেন নিউজনারায়ণগঞ্জ২৪ডটকমের নির্বাহী সম্পাদক তানভীর হোসেন। মামলাটি করেছিলেন নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার আলীরটেক এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী সায়েম। রবিবার দুপুরে হাইকোর্টে জামিনের আবেদন করলে আদালত আট সপ্তাহের জামিনের আদেশ দেন। বিচারপতি মেফতাহ উদ্দিন আহমেদ চৌধুরী ও আবু তাহের মো. সাইফুর রহমানের বেঞ্চে এ শুনানি অনুষ্ঠিত হয়।

আসামিপক্ষের আইনজীবী মারইয়াম খন্দকার বলেন, ‘আমরা আদালতকে বলেছি, সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে হয়রানির উদ্দেশ্যে মামলাটি করা হয়েছে। মামলার বাদীও নানা কারণে বিতর্কিত। আদালত আমাদের শুনানিতে সন্তুষ্ট হয়ে জামিন মঞ্জুর করেন।’

জামিন শেষে বেরিয়ে সাংবাদিকদের তানভীর হোসেন জানান, প্রভাবশালীদের নির্দেশে মামলাটি হয়েছে। প্রকৃতপক্ষে যে অভিযোগে মামলাটি হয়েছে, সেটা প্রশ্নবিদ্ধ। শুধু প্রভাবশালীদের চাপের কারণে এমনটি হয়েছে। তিনি বলেন, ‘আমরা মনে করি, হয়রানির উদ্দেশ্যেই মামলাটি করা হয়েছে। এ মামলার প্রকৃত তদন্ত চাই।’


মন্তব্য