kalerkantho

বেড়ায় ছাত্র খুন

ভাণ্ডারিয়া কসবায় দুই যুবককে হত্যা

প্রিয় দেশ ডেস্ক   

১২ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



বেড়ায় ছাত্র খুন

পাবনার বেড়ায় শিশুছাত্রকে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে চাচির বিরুদ্ধে। অভিযুক্তকে আটক করেছে পুলিশ। পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়ায় ঝালকাঠির কাঁঠালিয়ার যুবককে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় নিজ বাড়িতে প্রতিপক্ষের ছুুরিকাঘাতে প্রাণ গেছে যুবকের। বিস্তারিত প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে :

পাবনা (আঞ্চলিক) : বেড়া উপজেলায় শিশুছাত্র মো. মাশরাফি মর্তুজা তামিমকে (৬) শ্বাসরোধের পর গলা কেটে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে চাচির বিরুদ্ধে। পূর্ববিরোধের জেরে গত বুধবার খাকছাড়া চকপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে শিশুটির লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা মর্গে পাঠিয়েছে। অভিযুক্ত চাচি আঞ্জুয়ারা খাতুনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে তারা। তামিম খাকছাড়া চকপাড়ার মো. মুনসুর আমিনের ছেলে। সে আলহেরা একাডেমি স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিশু শ্রেণির ছাত্র ছিল। পুলিশ ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, বুধবার বিকেলে বাড়ির উঠানে দাগ কেটে ফুটবল খেলছিল তামিম। এতে তার চাচি আঞ্জুয়ারা বাধা দেয়। এর জেরে শিশুটির মা-বাবার সঙ্গে তার ঝগড়া হয়। পরে তামিম বাড়ির বাইরে খেলতে যায়। সন্ধ্যা হলেও না ফেরায় পরিবারের লোকজন খোঁজাখুঁজি করতে থাকে। পরে শিশুটির নিখোঁজ হওয়ার খবর মসজিদের মাইকে প্রচার করা হয়। একপর্যায়ে বাড়ির পাশে খড়ের গাদার কাছে তামিমের লাশ দেখতে পায় পরিবারের লোকজন। শিশুটির বাবা আমিনের অভিযোগ, দীর্ঘদিন ধরে ভাবির (আঞ্জুয়ারা) সঙ্গে তাঁদের পারিবারিক বিরোধ চলছে। তিনিই তামিমকে ডেকে ঘরে নিয়ে শ্বাসরোধের পর গলা কেটে হত্যা করেছেন। পরে সবার অগোচরে লাশ বাড়ির বাইরে খড়ের গাদার কাছে ফেলে রাখেন। বেড়া মডেল থানার ওসি মোজাফ্ফর হোসেন বলেন, আঞ্জুয়ারা খাতুনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। লাশের ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা মর্গে পাঠানো হয়েছে।

ঝালকাঠি ও পিরোজপুর (আঞ্চলিক) : ঝালকাঠির কাঁঠালিয়ার যুবক রাসেল খানকে পাশের পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়ায় কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। গত বুধবার রাতে পূর্ব মাটিভাঙা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে লিটন হাওলাদারকে আটক করা হয়েছে। রাসেল কৃষিকাজ করতেন বলে জানা গেছে। ভাণ্ডারিয়া থানার ওসি মো. শাহাবুদ্দিন জানান, রাসেল ও তাঁর সহযোগীরা ২০১৬ সালে পূর্ব মাটিভাঙ্গার সুলতান হাওলাদারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করেছিল। এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছিল। হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে এ ঘটনার কোনো যোগসূত্র আছে কি না তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। অন্যদিকে কাঁঠালিয়া থানার ওসি এম আর শওকত আনোয়ার জানান, রাসেলের বিরুদ্ধে তাঁদের থানায় ডাকাতি ও দস্যুতাসহ আটটি মামলা আছে। কে বা কারা এবং কেন তাকে হত্যা করেছে তা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া : নিজ বাড়িতে খুন হয়েছেন যুবক ইয়াকুব মিয়া। গত বুধবার বিকেলে কসবা উপজেলার রাধানগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে ১৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন ইয়াকুবের বাবা মিজান মিয়া। পুলিশ ইব্রাহিম মিয়াকে গ্রেপ্তার করেছে। এ ব্যাপারে কসবা থানার ওসি মো. মহিউদ্দিন জানান, ইব্রাহিমের বোনের কাছে জমির খড় বিক্রি করেছিলেন ইয়াকুবরা। এ নিয়ে তর্ক-বিতর্কের জেরে ইয়াকুবকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়। ইব্রাহিম বিষয়টি স্বীকার করেছেন বলেও ওসি জানান।


মন্তব্য