kalerkantho


লড়াই হবে সেয়ানে সেয়ান

বরিশাল অফিস   

১২ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



লড়াই হবে সেয়ানে সেয়ান

বরিশাল সিটি করপোরেশনের ৪ নম্বর ও ৮ নম্বর ওয়ার্ডের প্রার্থীরা ছুটছেন ভোটারদের দ্বারে দ্বারে। দিচ্ছেন নানা প্রতিশ্রুতি। কিন্তু ভোটাররা কষছে উন্নয়নের সমীকরণ। সেই সমীকরণে বারবার ঘুরেফিরে উঠে আসছে চার প্রার্থীর নাম। দুটি ওয়ার্ডেই সমস্যাগুলো গতানুগতিক। এখানে পানি নিষ্কাশনের সুব্যবস্থা নেই। রাস্তাগুলো ভাঙাচোরা। ময়লা-আবর্জনার দুর্গন্ধে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী। এ সমস্যাগুলো সমাধানের জন্য যাঁদের প্রতিশ্রুতি ভোটাররা গ্রহণ করবে, তাঁদেরই তারা বিজয়ী করবে।

৪ নম্বর ওয়ার্ড : ভাটিখানা, ভাটিখানা চৌধুরী সড়ক, টাউন স্কুল, স্বরোড নতুন বাকলা, উলাল ঘুনি আর উত্তর আমানতগঞ্জ নিয়ে ৪ নম্বর ওয়ার্ড। ভোটার সংখ্যা ৯ হাজার ২৮০। এ ওয়ার্ডে চারজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তবে বিএনপিপন্থী বর্তমান কাউন্সিলর মো. ইউনুছ মিয়ার সঙ্গে আওয়ামী লীগ সমর্থিত সাবেক কাউন্সিলর তৌহিদুল ইসলাম বাদশাহর মূল লড়াই হবে।

বর্তমান কাউন্সিলর মো. ইউনুছ মিয়া বলেন, ‘৪ নম্বর ওয়ার্ডের জনগণ বারবার আমাকে কাউন্সিলর নির্বাচিত করেছে। আর আমি তাদের আশানুরূপ কাজ উপহার দিয়েছি। এ ওয়ার্ডের বেশ কয়েকটি বিদ্যালয়ে ভবন ও টিভির পুকুরের সৌন্দর্যবর্ধন করেছি। এ ছাড়া ওয়ার্ডের ড্রেনেজব্যবস্থার উন্নয়ন, পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা ও প্রশস্ত ফুটপাত নির্মাণ করেছি। তাই সাধারণ মানুষ আমাকেই ফের নির্বাচিত করবে।’

আওয়ামী লীগ সমর্থিত সাবেক কাউন্সিলর তৌহিদুল ইসলাম বাদশাহ বলেন, ‘২০০৮ থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত আমি এ ওয়ার্ডে কাউন্সিলরের দায়িত্ব পালন করেছি। আর ওই সময়ে সবচেয়ে বেশি উন্নয়ন হয়েছে। তাই আশা করছি, সাধারণ মানুষ আমাকেই ভোট দেবে।’

৮ নম্বর ওয়ার্ড : বাজার রোড, কাঠপট্টি, জেলখানা, দপ্তরখানা, পুরান কয়লাঘাট, লাইন রোড, স্বরোড এলাকার হাটখোলা নিয়ে ৮ নম্বর ওয়ার্ড। এখানে ভোটার সংখ্যা চার হাজার ৯৭২। এ ওয়ার্ডে তিনজন প্রার্থী রয়েছেন। তাঁদের মধ্যে আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী সুরঞ্জিত দত্ত লিটু ও ২০১৩ সালের নির্বাচনে অল্প ভোটের ব্যবধানে পরাজিত প্রার্থী মো. আল আমিনের সঙ্গে মূল লড়াই হবে।

আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী সুরঞ্জিত দত্ত লিটু বলেন, ‘আমি নির্বাচিত হলে ৮ নম্বর ওয়ার্ডে সর্বপ্রথম একটি হেলথ কেয়ার সেন্টার নির্মাণ করব। এর বাইরেও এলাকার রাস্তাঘাট উন্নয়ন, শিক্ষা বিস্তারসহ সাধারণ মানুষের উন্নয়নে কাজ করব।’

মো. আল আমিন বলেন, ‘আমি নির্বাচিত হলে পরিকল্পিত ড্রেন নির্মাণ, সড়ক উন্নয়ন ও পুরো ওয়ার্ডের নিরাপত্তাব্যবস্থা জোরদার করব।’



মন্তব্য