kalerkantho


ঢাকা থেকে দুই ব্যবসায়ীকে কিশোরগঞ্জে নিয়ে নির্যাতন

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি   

১৩ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



ব্যবসায়িক বিরোধের জের ধরে রাজধানী ঢাকা থেকে অপহরণ করে কিশোরগঞ্জে নিয়ে দুই পার্টনারকে নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার অপহরণ ও নির্যাতনের শিকার দুই ব্যবসায়ীকে শহরের শোলাকিয়া এলাকার একটি বাসা থেকে পুলিশ উদ্ধার করেছে। একই সঙ্গে অপহরণের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

আটক ব্যক্তিরা হলো কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়া এলাকার বাসিন্দা মৃত শামসুদ্দিনের ছেলে পলাশ (৪২) ও কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার কালিয়াকান্দা গ্রামের মৃত সাইদুর রহমানের ছেলে মুখলেছুর রহমান (৪৫)। অপহরণের শিকার ব্যক্তিরা হলেন মাগুরা সদরের পাকাখোর্দ গ্রামের মৃত হাবিবুর রহমানের ছেলে তৌহিদুর রহমান ও কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী উপজেলার গচিহাটার পশ্চিম পরুরা গ্রামের রফিক উদ্দিনের ছেলে মিজানুর রহমান।

নির্যাতনের শিকার দুই ব্যবসায়ী জানান, তাঁদের গত বুধবার দুপুরে রাজধানীর কুড়িল এলাকা থেকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে একটি প্রাইভেট কারে তুলে অপহরণ করা হয়। পরে ভৈরব, ব্রাহ্মণবাড়িয়া ও আখাউড়া এলাকায় ঘোরাঘুরি করে রাত ১২টার দিকে কিশোরগঞ্জ শহরের শোলাকিয়ার একটি বাসায় আটকে রেখে মারপিট করা হয়।

তাঁরা জানান, আটককৃত পলাশ ও মুখলেছুরসহ মোট চারজন তাদের অপহরণ করে। এ সময় অপহরণকারীরা তাদের কাছে ২০ লাখ টাকা দাবি করে। টাকা না দিলে মেরে ফেলাসহ বিভিন্ন ধরনের হুমকি দেওয়া হয়। এমনকি মাদক দিয়ে পুলিশে ধরিয়ে দেওয়ারও ভয় দেখায়।

কিশোরগঞ্জ থানা পুলিশ জানায়, খবর পেয়ে পুলিশ দুপুরে শোলাকিয়া থেকে দুই ব্যবসায়ীকে উদ্ধার করার পাশাপাশি অপহরণে জড়িত সন্দেহে দুজনকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

নির্যাতিত তৌহিদুর রহমান বলেন, রাজধানীর উত্তরার আজমপুর এলাকায় এমআরটি ইঞ্জিনিয়ারিং নামে তাঁদের একটি ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান রয়েছে।



মন্তব্য