kalerkantho


ক্যান্সার জয় করে বাঁচতে চান সাংবাদিক নজরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



ক্যান্সার জয় করে বাঁচতে চান সাংবাদিক নজরুল

গতকাল সাংবাদিক নজরুলের হাতে আর্থিক সহায়তা তুলে দেন হযরত সৈয়দ জিয়াউল হক মাইজভাণ্ডারী (ক.) ট্রাস্ট কর্মকর্তারা।

দৈনিক কালের কণ্ঠের আঞ্চলিক প্রতিনিধি (বোয়ালখালী-পটিয়া)

মোহাম্মদ নজরুল ইসলাম দুরারোগ্য ক্যান্সারে আক্রান্ত। যে মানুষটি এতদিন ছুটেছিলেন সংবাদের পেছনে, এখন তিনি নিজেই সংবাদ। তাঁর বসবাস মৃত্যুশয্যায়। মৃত্যুকে জয় করে তিনি বাঁচতে চান।

সবার একটু সহমর্মিতা-সহযোগিতা পেলে বেঁচে যাবেন নজরুল। আবারও তাঁর কলম-কাগজ ফিরে পাবেন। মানুষের কল্যাণে কাজ করবেন বীর মুক্তিযোদ্ধার এই সন্তান। চিকিত্সকরা বলছেন, নজরুলের বেঁচে থাকার সব সম্ভাবনা এখনো ফুরিয়ে যায়নি।

এরই মধ্যে কালের কণ্ঠের সহকর্মী সাংবাদিক-কর্মচারীসহ অনেকে তাঁর পাশে দাঁড়িয়েছেন। তাঁর চিকিত্সার জন্য আরো কমপক্ষে ২০ লাখ টাকা প্রয়োজন। সমাজের বিত্তবানসহ সবাই এগিয়ে এলে বেঁচে যাবেন নজরুল।

এদিকে মঙ্গলবার ফটিকছড়ি মাইজভাণ্ডার দরবারের সাজ্জাদানশীন হয়রত সৈয়দ মোহাম্মদ হাসান মাইজভাণ্ডারীর নির্দেশে বোয়ালখালীর গ্রামের বাড়িতে নজরুলকে দেখতে যান হযরত সৈয়দ জিয়াউল হক মাইজভাণ্ডারী (ক.) ট্রাস্ট কর্মকর্তারা। ট্রাস্টের পক্ষ থেকে তাঁর হাতে আর্থিক সহায়তা তুলে দেওয়া হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ট্রাস্টের জাকাত তহবিল পরিচালনা পর্ষদ সাধারণ সম্পাদক আবদুল হালিম আল মাসুদ ও প্রচার সম্পাদক মোহাম্মদ নাছের, তাজুল ইসলাম রাজু, মাইজভাণ্ডারী গাউসিয়া হক কমিটি বোয়ালখালী থানা সমন্বয়ক মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম, রবিউল ইসলাম, আবদুল খালেক, সেকান্দর আলম বাবর, তৌহিদুল আলম প্রমুখ।

জানা গেছে, বর্তমানে নজরুলের চিকিত্সা চলছে ঢাকার ডেল্টা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ লে. কর্নেল (অব.) ডা. এম এস সরোয়ার আলমের তত্ত্বাবধানে। এর আগে তিনি ভারতের মুম্বাইয়ে টাটা মেমোরিয়াল হাসপাতালে চিকিত্সা নিয়েছেন টানা তিন মাস। সেখানে চিকিত্সায় খরচ হয়েছে প্রায় ২৩ লাখ টাকা। এ জন্য তিনি বোয়ালখালীতে ২০ শতক জমিও বিক্রি করেছেন।

চিকিত্সার খরচ জোগাতে নিঃস্ব হয়ে গেছে নজরুলের পরিবার। তাঁর চিকিত্সায় আর্থিক সহায়তা জমা দেওয়া যাবে ব্যাংক হিসাবে।

সঞ্চয়ী হিসাব নম্বর : ৪১২৯-১৬০২৯৫-৩০০, এবি ব্যাংক, বোয়ালখালী শাখা, চট্টগ্রাম। ফোন : ০১৭১৪০৯৩৮৭৫ ও ০১৮৩৫৬৭৩৪৮৮।’

 


মন্তব্য