kalerkantho


সুয়ারেসের কান্না...

১৬ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



অন্ধকার দেখছিলেন চারদিকে। ২০১৪ বিশ্বকাপে জর্জিও কিয়েল্লিনিকে কামড়ে ক্যারিয়ার নিয়ে শঙ্কায় ছিলেন লুই সুয়ারেস। সব ধরনের ফুটবল থেকে চার মাস আর আন্তর্জাতিক ফুটবলে ৯ ম্যাচ নিষিদ্ধ হওয়ার পর বার্সেলোনা তাঁকে ন্যু ক্যাম্পে আনবে কি না নিশ্চিত হতে পারছিলেন না কোনোভাবে। দেশে ফেরার কয়েক দিন পর দুরুদুরু বুকে সুয়ারেস ফোন দেন বার্সেলোনার পরিচালক আনদোনি জুবিজারেতাকে। অভয় দেন তিনি। এর পরই নাকি কান্নায় ভেঙে পড়েছিলেন সুয়ারেস। ‘দ্য প্লেয়ার্স ট্রিবিউনের’ জন্য সতীর্থ জেরার্দ পিকেকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সুয়ারেসের অকপট স্বীকারোক্তি, ‘লকার রুমে এসে সবার আগে কথা বলি স্ত্রীর সঙ্গে। ও কিছুক্ষণ বকাঝকা করল। বার্সেলোনায় যাওয়া হবে কি না—এ নিয়ে শঙ্কিতও হয়ে পড়েছিলাম। কদিন পর কথা বলি আনদোনির সঙ্গে। তিনি অভয় দিয়ে জানান আমাকে নিয়ে কোনো সমস্যা নেই বার্সার। কথাটা শুনে চোখের পানি ধরে রাখতে পারিনি আর।’

এদিকে আবারও চোট পেয়েছেন বার্সেলোনার ফরাসি তারকা উসমান দেম্বেলে। গত বছরের সেপ্টেম্বর থেকে জানুয়ারি পর্যন্ত ইনজুরির জন্য মাঠের বাইরে থাকা ফরাসি এই তারকা রিয়াল সোসিয়েদাদের বিপক্ষে চোট পেয়েছেন আবারও। ফিলিপে কৌতিনিয়োর আগে বার্সার সবচেয়ে দামি খেলোয়াড় ছিলেন তিনিই। গত পরশু পাউলিনিয়োর বদলি হয়ে শেষ ২০ মিনিট খেলা দেম্বেলে মাঠ ছাড়েন ব্যথা নিয়ে। বাঁ ঊরুতে পাওয়া চোটে তিন থেকে চার সপ্তাহ মাঠের বাইরেই কাটাতে হবে তাঁকে। সেপ্টেম্বর থেকে জানুয়ারি পর্যন্ত যে ইনজুরির জন্য মাঠের বাইরে ছিলেন এবারের চোটটা সেখানে পাননি দেম্বেলে, এটাই যা স্বস্তির। ইনজুরিতে পড়েছেন আন্দ্রেস ইনিয়েস্তাও। এ জন্য আগামীকাল এস্পানিওলের বিপক্ষে মাঠের বাইরে থাকবেন তিনি। মার্কা


মন্তব্য