kalerkantho


সৈয়দপুর রেল কারখানা

জনবল সংকটে উৎপাদনে ভাটা

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি   

২১ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



সৈয়দপুরে দেশের বৃহত্তম রেলওয়ে কারখানাটিতে জনবল সংকট রয়েছে। ফলে মারাত্মকভাবে ব্যাহত হচ্ছে উৎপাদন। কারখানার অর্ধেকেরও বেশি পদ শূন্য পড়ে আছে। ফলে জোড়াতালি দিয়ে যাবতীয় কার্যক্রম চলানো হচ্ছে।

জানা গেছে, আসাম-বেঙ্গল রেলপথকে ঘিরে ১১০ একর জমির ওপর ১৮৭০ সালে সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানা স্থাপন করা হয়। একসময় এ কারখানার ২৮টি উপকারখানায় (শপ) ১০ হাজারেরও বেশি শ্রমিক-কর্মচারী কাজ করত। বর্তমানে এর সংখ্যা মাত্র এক হাজার ৪৫ জন। কারখানাটিতে অনুমোদিত পদের সংখ্যা দুই হাজার ৮৩৪ জন।

সূত্র জানা যায়, কারখানায় প্রতিবছর ৬৪২টি বিজি ও এমজি কোচ এবং এক হাজার ৫৩৫টি বিজি ওয়াগন মেরামত করার কথা; কিন্তু জনবল সংকটের কারণে তা সম্ভব হচ্ছে না। কাজের গুণগত মানও নষ্ট হচ্ছে। খুচরা যন্ত্রাংশ তৈরির ৭৮৭টি মেশিন ও প্লান্টস চালানোর জন্য অনুমোদিত পদ রয়েছে ২৫৫টি। সেখানে বর্তমানে কাজ করছে মাত্র ১০৯ জন। তাই স্বল্পসংখ্যক জনবল দিয়ে সব মেশিন ও প্লান্ট চালানো যাচ্ছে না। ফলে অনেক গুরুত্বপূর্ণ যন্ত্রাংশ তৈরি বন্ধ হয়ে গেছে। এসব যন্ত্রাংশ রেলওয়ে কর্তৃপক্ষকে এখন বাইরে থেকে কিনতে হচ্ছে। এ কারণে সরকারি খাত থেকে অতিরিক্ত টাকা খরচ হচ্ছে।

সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার প্রশাসন শাখার জুনিয়র পার্সোনেল কর্মকর্তা (জেপিও) আব্দুস সালাম জানান, এ বছর ৮০ জন এবং আগামী বছর ৯২ জন শ্রমিক-কর্মচারী অবসরে যাবেন।


মন্তব্য